Redmi 10 Prime নাকি Redmi Note 10, কোন ফোনটি আপনার কেনা উচিত জেনে নিন

Redmi 10 Prime নাকি বিদ্যমান Redmi Note 10, কোনটি আপনার জন্য সেরা বিকল্প হবে

redmi-10-prime-vs-redmi-note-10-comparison-specifications-price-difference

গত সপ্তাহে ভারতের বাজারে পা রেখেছিলো Redmi 10 Prime। এই ফোনে, সুপার অ্যামোলেড টাচ-স্ক্রিন, মিডিয়াটেক হেলিও জি৮৮ চিপসেট, ৫০ মেগাপিক্সেল মুখ্য সেন্সর সহ কোয়াড-রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ এবং ৬,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি সহ আরও অনেক আকর্ষণীয় ফিচার আছে। এই ফোনটির দাম ১৫,০০০ টাকার কম। আবার প্রায় একই প্রাইস রেঞ্জে ভারতে উপস্থিত Redmi Note 10। এই ফোনে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৭৮জি চিপসেট, ৪৮ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি রিয়ার সেন্সর এবং ৫,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি রয়েছে। আজ আমরা এই দুটি ফোনের দাম ও স্পেসিফিকেশনের পার্থক্য আপনাদের সামনে তুলে ধরবো, যাতে নয়া Redmi 10 Prime নাকি বিদ্যমান Redmi Note 10, কোনটি আপনার জন্য সেরা বিকল্প হবে তা বুঝতে পারেন।

Redmi Note 10 vs Redmi 10 Prime: ডিসপ্লে

রেডমি নোট ১০ স্মার্টফোনে আছে একটি ৬.৪৩ ইঞ্চি (১,০৮০x২,৪০০ পিক্সেল) সুপার অ্যামোলেড ডিসপ্লে।

অন্যদিকে, নয়া রেডমি ১০ প্রাইম স্মার্টফোনের ডিসপ্লে সাইজ সামান্য বড়ো থাকছে। এতে একটি ৬.৫০ ইঞ্চি (১,০৮০x২,৪০০ পিক্সেল) সুপার অ্যামোলেড ডিসপ্লে দেখা যাবে।

Redmi Note 10 vs Redmi 10 Prime: প্রসেসর, অপারেটিং সিস্টেম

রেডমি নোট ১০ ফোনে ব্যবহার করা হয়েছে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৭৮জি প্রসেসর। এটি অ্যান্ড্রয়েড ১১ বেসড এমআইইউআই ১২ (MIUI 12) কাস্টম ওএস স্কিন দ্বারা চালিত হবে।

রেডমি ১০ প্রাইম ফোনে ব্যবহার করা হয়েছে মিডিয়াটেক হেলিও জি৮৮ প্রসেসর। এটি অ্যান্ড্রয়েড ১১ বেসড লেটেস্ট এমআইইউআই ১২.৫ (MIUI 12.5) ওএস ভার্সনে চলবে।

Redmi Note 10 vs Redmi 10 Prime: র‍্যাম-স্টোরেজ

রেডমি নোট ১০ ফোনে ৬ জিবি পর্যন্ত র‍্যাম এবং ১২৮ জিবি পর্যন্ত স্টোরেজ আছে। ফোনের স্টোরেজ ক্যাপাসিটি মাইক্রোএসডি কার্ড ব্যবহার করে ৫১২ জিবি পর্যন্ত বাড়ানো যাবে।

রেডমি নোট ১০ প্রাইম ফোনের স্টোরেজ ফ্রন্ট রেডমি নোট ১০ -এর অনুরূপ।

Redmi Note 10 vs Redmi 10 Prime: ক্যামেরা

রেডমি নোট ১০ স্মার্টফোনের ব্যাক প্যানেলে চারটি ক্যামেরা দেওয়া হয়েছে। এগুলি হলো, ৪৮ মেগাপিক্সেল (অ্যাপারচার : এফ/১.৮) প্রাইমারি সেন্সর, ৮ মেগাপিক্সেল (অ্যাপারচার : এফ/২.২) সেকেন্ডারি সেন্সর, ২ মেগাপিক্সেল (অ্যাপারচার : এফ/২.৪) সেন্সর এবং ২ মেগাপিক্সেল (অ্যাপারচার : এফ/১.৮) সেন্সর। আবার, সেলফি ক্লিক বা ভিডিও কলিংয়ের জন্য থাকছে ১৩ মেগাপিক্সেলের (অ্যাপারচার : এফ/১.৮) একটি ফ্রন্ট-ফেসিং ক্যামেরা।

রেডমি ১০ প্রাইম ফোনেও কোয়াড-রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ দেখা যাবে। এগুলি হলো, ৫০ মেগাপিক্সেল (অ্যাপারচার : এফ/২.২) প্রাইমারি সেন্সর, ৮ মেগাপিক্সেল (অ্যাপারচার : এফ/২.২) সেকেন্ডারি সেন্সর, ২ মেগাপিক্সেল (অ্যাপারচার : এফ/২.৪) সেন্সর এবং ২ মেগাপিক্সেল (অ্যাপারচার : এফ/২.৪) সেন্সর। একই সাথে, ফোনের সামনের অংশে থাকছে ৮ মেগাপিক্সেলের (অ্যাপারচার : এফ/২.০) একটি সেলফি ক্যামেরা।

Redmi Note 10 vs Redmi 10 Prime: পরিমাপ

রেডমি নোট ১০ ফোনের পরিমাপ ১৬০.৪৬x৭৪.৫০x৮.৩০ মিমি এবং ওজন ১৭৮.৮০ গ্রাম।

রেডমি ১০ প্রাইম ফোনের পরিমাপ ১৬১.৯৫x৭৫.৫৭x৯.৫৬ মিমি এবং ওজন ১৯২ গ্রাম।

Redmi Note 10 vs Redmi 10 Prime: সেন্সর

রেডমি নোট ১০ ফোনে, ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর, কম্পাস / ম্যাগনেটোমিটার সেন্সর, প্রক্সিমিটি সেন্সর, অ্যাক্সেলেরোমিটার সেন্সর, অ্যাম্বিয়েন্ট লাইট সেন্সর এবং জাইরোস্কোপ সেন্সর বর্তমান।

রেডমি ১০ প্রাইমে থাকছে, ফেস আনলক, ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর, কম্পাস / ম্যাগনেটোমিটার সেন্সর, প্রক্সিমিটি সেন্সর, অ্যাক্সেলেরোমিটার সেন্সর এবং অ্যাম্বিয়েন্ট লাইট সেন্সর।

Redmi Note 10 vs Redmi 10 Prime: কানেক্টিভিটি

রেডমি নোট ১০ -এর কানেক্টিভিটি অপশনের মধ্যে সামিল রয়েছে, ওয়াই-ফাই, জিপিএস, ব্লুটুথ, ইনফ্রারেড, ইউএসবি টাইপ-সি পোর্ট, ডুয়েল সিম স্লট এবং একটি ৩.৫ মিমি দৈর্ঘ্যের হেডফোন জ্যাক।

রেডমি ১০ প্রাইম ফোনে কানেক্টিভিটির জন্য পাওয়া যাবে, ওয়াই-ফাই, জিপিএস, ব্লুটুথ ভি৫.১০, ইনফ্রারেড, এফএম, ইউএসবি টাইপ-সি পোর্ট, ডুয়েল সিম স্লট এবং একটি ৩.৫ মিমি দৈর্ঘ্যের হেডফোন জ্যাক।

Redmi Note 10 vs Redmi 10 Prime: ব্যাটারি

রেডমি নোট ১০ স্মার্টফোনে আছে ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির একটি ব্যাটারি, যা ৩৩ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং টেকনোলজি সাপোর্ট করবে।

অন্যদিকে, রেডমি নোট ১০ প্রাইমের ব্যাটারি তুলনায় বেশি শক্তিশালী। এতে, ৩৩ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট সহ ৬,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি আছে।

Redmi Note 10 vs Redmi 10 Prime: দাম, কালার অপশন

রেডমি নোট ১০ স্মার্টফোন দুটি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টে পাওয়া যাবে। যার মধ্যে, ৪ জিবি র‍্যাম এবং ৬৪ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের দাম ১৩,৯৯৯ টাকা। আর, ৬ জিবি র‍্যাম এবং ১২৮ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের দাম রাখা হয়েছে ১৫,৪৯৯ টাকা। এটি, অ্যাকোয়া গ্রিন, ফ্রস্ট হোয়াইট এবং শ্যাডো ব্ল্যাক কালারে উপলব্ধ।

রেডমি ১০ প্রাইম স্মার্টফোনও দুটি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের সাথে লঞ্চ হয়েছে। যার মধ্যে, ৪ জিবি র‍্যাম এবং ৬৪ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের দাম থাকছে ১২,৪৯৯ টাকা। আর, ৬ জিবি র‍্যাম এবং ১২৮ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের দাম রাখা হয়েছে ১৪,৪৯৯ টাকা। এটিকে, অ্যাস্ট্রাল হোয়াইট, বিফরেস্ট হোয়াইট এবং ফ্যান্টম ব্ল্যাক কালারে পাওয়া যাবে।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন

শুভেচ্ছা বহুমুখী প্রতিভার অধিকারী। তিনি একদিকে যেমন ফটোগ্রাফার, তেমনি পাশাপাশি লেখিকাও। এছাড়াও তার শখের মধ্যে আছে বই পড়া, গান গাওয়া, ছবি আঁকা এবং ওয়েব ডিজাইন। শুভেচ্ছা আমাদের টেকগাপ পরিবারের একজন নতুন সদস্য।