Redmi Note 11 নাকি Redmi Note 10, নোট সিরিজের কোন ফোনটি সেরা

Redmi Note 11 vs Redmi Note 10 comparison

অক্টোবরের শেষ সপ্তাহে চীনে লঞ্চ হয়েছে Redmi Note 11। 5G কানেক্টিভিটির সাথে আসা এই ফোনের দাম শুরু হয়েছে প্রায় ১৪,০০০ টাকা থেকে। ভারতে ফোনটি Redmi Note 11T 5G নামে আসবে বলে জল্পনা শোনা যাচ্ছে। এই ফোনের বিশেষ বিশেষ ফিচারের মধ্যে রয়েছে মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ৮১০ প্রসেসর, ৫০ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর সহ ডুয়েল রিয়ার ক্যামেরা, ৫,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি। বলার অপেক্ষা রাখে না যে, এই ফোনটি Redmi Note 10 এর উত্তরসূরি হিসাবে এসেছে। কিন্তু পূর্বসূরির থেকে কতটা আপগ্রেড ফিচার পেল নতুন রেডমি নোট ফোন? দামই বা কত বেশি বা কম রাখা হয়েছে? এই প্রতিবেদনে আমরা ফোন দুটির দাম ও স্পেসিফিকেশনের পার্থক্য আপনাদের সামনে তুলে ধরবো।

Redmi Note 11 vs Redmi Note 10: দাম, কালার অপশন

রেডমি নোট ১১ ৫জি ফোনের দাম শুরু হয়েছে ১,১৯৯ ইউয়ান থেকে, যা প্রায় ১৪,০০০ টাকার সমান। এই মূল্য ফোনটির ৪ জিবি র‌্যাম + ১২৮ জিবি স্টোরেজের। আবার ফোনটি ৬ জিবি র‌্যাম + ১২৮ জিবি স্টোরেজ, ৮ জিবি র‌্যাম + ১২৮ জিবি স্টোরেজ ও ৮ জিবি র‌্যাম + ২৫৬ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টে পাওয়া যাবে। এদের মূল্য ধার্য করা হয়েছে যথাক্রমে ১,২৯৯ ইউয়ান (প্রায় ১৫,২০০ টাকা), ১,৪৯৯ ইউয়ান (প্রায় ১৭,৫০০ টাকা) ও ১,৬৯৯ ইউয়ান (প্রায় ১৯,৯০০ টাকা)। ফোনটি ব্ল্যাক রিয়লম, স্যালো ড্রিম গ্যালাক্সি ও সিলভার মিন্ট কালারে বেছে নেওয়া যাবে।

রেডমি নোট ১০ স্মার্টফোন দুটি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টে পাওয়া যায়। যার মধ্যে, ৪ জিবি র‍্যাম এবং ৬৪ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের দাম ১৩,৯৯৯ টাকা। আর, ৬ জিবি র‍্যাম এবং ১২৮ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের দাম রাখা হয়েছে ১৫,৪৯৯ টাকা। এটি, অ্যাকোয়া গ্রিন, ফ্রস্ট হোয়াইট এবং শ্যাডো ব্ল্যাক কালারে উপলব্ধ।

Redmi Note 11 vs Redmi Note 10: ডিসপ্লে

রেডমি নোট ১১ ৫জি ফোনে আছে ৬.৬ ইঞ্চি ফুল এইচডি প্লাস (২৪০০ x ১০৮০ পিক্সেল) আইপিএস পাঞ্চ হোল ডিসপ্লে, যা ৯০ হার্টজ রিফ্রেশ রেট সাপোর্ট করবে। 

অন্যদিকে রেডমি নোট ১০ স্মার্টফোনে আছে ৬০ হার্টজ রিফ্রেশ রেটের একটি ৬.৪৩ ইঞ্চি (১,০৮০x২,৪০০ পিক্সেল) সুপার অ্যামোলেড ডিসপ্লে।

Redmi Note 11 vs Redmi Note 10: প্রসেসর, অপারেটিং সিস্টেম

রেডমি নোট ১১ ফোনে ব্যবহার করা হয়েছে মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ৮১০ প্রসেসর। ফোনটি অ্যান্ড্রয়েড বেসড এমআইইউআই ১২.৫ কাস্টম স্কিনে রান করবে। 

রেডমি নোট ১০ ফোনে ব্যবহার করা হয়েছে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৭৮জি প্রসেসর। এটি অ্যান্ড্রয়েড ১১ বেসড এমআইইউআই ১২ (MIUI 12) কাস্টম ওএস স্কিন দ্বারা চালিত হবে।

Redmi Note 11 vs Redmi Note 10: ক্যামেরা

রেডমি নোট ১১ ফোনের পিছনে ডুয়েল ক্যামেরা সেটআপ বর্তমান। এই ক্যামেরাগুলি হল ৫০ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর ও ৮ মেগাপিক্সেল আল্ট্রা ওয়াইড অ্যাঙ্গেল সেন্সর। আবার সেলফি ও ভিডিও কলিংয়ের জন্য এতে পাওয়া যাবে ১৬ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা।

রেডমি নোট ১০ স্মার্টফোনের ব্যাক প্যানেলে চারটি ক্যামেরা দেওয়া হয়েছে। এগুলি হলো, ৪৮ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর, ৮ মেগাপিক্সেল সেকেন্ডারি সেন্সর, ২ মেগাপিক্সেল সেন্সর এবং ২ মেগাপিক্সেল সেন্সর। আবার, সেলফি ক্লিক বা ভিডিও কলিংয়ের জন্য থাকছে ১৩ মেগাপিক্সেলের একটি ফ্রন্ট-ফেসিং ক্যামেরা।

Redmi Note 11 vs Redmi Note 10: ব্যাটারি

পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য রেডমি নোট ১১ ফোনে ৫,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি দেওয়া হয়েছে, যার সাথে ৩৩ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করবে। ফোনটি ৬২ মিনিটে ফুল চার্জ হয়ে যাবে।

রেডমি নোট ১০ স্মার্টফোনে আছে ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির একটি ব্যাটারি, যা ৩৩ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং টেকনোলজি সাপোর্ট করবে।

Redmi Note 11 vs Redmi Note 10: কানেক্টিভিটি

রেডমি নোট ১১ ফোনে কানেক্টিভিটি অপশনের মধ্যে রয়েছে 5G, ডুয়েল সিম, ব্লুটুথ ৫.২, ওয়াই-ফাই ৬, জিপিএস, ইউএসবি টাইপ সি পোর্ট ও ৩.৫মিমি হেডফোন জ্যাক।

রেডমি নোট ১০ -এর কানেক্টিভিটি অপশনের মধ্যে সামিল রয়েছে, 4G LTE, ওয়াই-ফাই, জিপিএস, ব্লুটুথ, ইউএসবি টাইপ-সি পোর্ট, ডুয়েল সিম স্লট এবং একটি ৩.৫ মিমি দৈর্ঘ্যের হেডফোন জ্যাক।

Passionate techie. Professional tech writer. A true cricket fan. Julai is a senior editor For Techgup and has frequently written about smartphones, apps, telecom News. You can follow him on Twitter @Julai_Mondal.