জিও ফোন ব্যবহার করেন ? তাহলে অবশ্যই এই দুটি প্ল্যান সম্পর্কে জানুন

রিলায়েন্স তাদের জিও ফোন গ্রাহকদের জন্য নতুন দুটি দীর্ঘ মেয়াদি প্রিপেড প্ল্যান লঞ্চ করলো

ভারতীয় টেলিকম কোম্পানি,রিলায়েন্স জিও থেকে এয়ারটেল সবাই দীর্ঘ মেয়াদী প্ল্যানের জাদু দেখিয়ে গ্রাহক টানতে ব্যস্ত।রিলায়েন্স জিও-র ১৬৯৯ টাকার একবছরের প্ল্যানকে টেক্কা দিতে ইতিমধ্যে এয়ারটেল,ভোডাফোন-আইডিয়া ও বিএসএনএল বার্ষিক প্রিপেড প্ল্যান লঞ্চ করেছে।এর কয়েকদিন পর এয়ারটেল ৩৩৬ দিন ও ১৬৮ দিনের আরো দুটি রিচার্জ প্ল্যান বাজারে আনে। এবার রিলায়েন্স তাদের জিও ফোন গ্রাহকদের জন্য নতুন দুটি দীর্ঘ মেয়াদি প্রিপেড প্ল্যান লঞ্চ করলো। ৫৯৪ টাকা ও ২৯৭ টাকার এই দুটি রিচার্জ প্ল্যানের বৈধতা যথাক্রমে ১৬৮ দিন ও ৮৪ দিন। আসুন এই দুই প্ল্যান সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে নেই।

রিলায়েন্স জিও ৫৯৪ টাকার প্ল্যান :

জিও ফোনের ৫৯৪ টাকার প্ল্যানের বৈধতা ১৬৮ দিন।এই প্ল্যানে গ্রাহকরা পাবেন আনলিমিটেড লোকাল এবং এসটিডি কলের সুবিধা।এছাড়াও প্রতি ২৮ দিন অন্তর ৩০০টি করে এসএমএস এবং দৈনিক ০.৫ জিবি হাই স্পীড ডেটা। ডেটা বৈধতা অতিক্রম করে গেলে স্পীড কমে আসবে ৬৪ কেবিপিএসে।

রিলায়েন্স জিও ২৯৭ টাকার প্ল্যান :

জিও ফোনের ২৯৭ টাকার প্ল্যানের বৈধতা ৮8 দিন।এই প্ল্যানে গ্রাহকরা আনলিমিটেড লোকাল এবং এসটিডি কলের সুবিধা পাবেন ।এছাড়াও প্রতি ২৮ দিন অন্তর ৩০০টি করে এসএমএস এবং দৈনিক ০.৫ জিবি হাই স্পীড ডেটা দেওয়া হবে ।ডেটা বৈধতা অতিক্রম করে গেলে স্পীড কমে আসবে ৬৪ কেবিপিএসে।

জিও ফোনের বর্তমানের মাসিক প্ল্যানগুলো হল :-

সর্বনিম্ন প্লানটি হল ৪৯ টাকার, যেখানে ২৮ দিনের বৈধতায় ফ্রী ভয়েস কলিং , ৫০টি এসএমএস এবং ১ জিবি ডেটা দেওয়া হয়।
দ্বিতীয় প্লানটি হল ৯৯ টাকার, যেখানে ২৮ দিনের বৈধতায় ফ্রী ভয়েস কলিং , ৩০০টি এসএমএস এবং ১৪ জিবি ডেটা পাওয়া যায়।
সর্বোচ্চ প্লানটি হল ১৫৩ টাকার, যেখানে ২৮ দিনের বৈধতায় ফ্রী ভয়েস কলিং , প্রতিদিন ১০০টি এসএমএস এবং ১.৫ জিবি ডেটা।অর্থাত্‍ মোট ৪২ জিবি ডেটা দেওয়া হয়।

পড়ুন : ৫৯৭ ও ৯৯৮ টাকার এয়ারটেলর দীর্ঘ মেয়াদি প্ল্যান : ইন্টারনেট ডেটা সহ ৩৩৬ দিন আনলিমিটেড কল