ভারতে 5G ট্রায়ালের জন্য DoT-র অনুমতি চাইলো রিলায়েন্স জিও

reliance-jio-seeks-dots-permission-for-5g-filed-trail

কয়েকদিন আগে মুকেশ আম্বানি তাদের ৪৩ তম বার্ষিক সাধারণ সভায় ঘোষণা করেছিল যে, Reliance Jio ভারতে প্রথম 5G নেটওয়ার্ক নিয়ে আসবে। এরপরই জিও, ডিপার্টমেন্ট অফ টেলিকমিউনিকেশনের (DoT) থেকে ফিল্ড ট্রায়ালের জন্য 5G স্পেকট্রাম ব্যবহারের অনুমতি চাইল। জিও DoT এর থেকে ৮০০ মেগাহার্টজ স্পেকট্রামের mmWave ব্যান্ড ( 26GHz ও 24Ghz) এবং ১০০ মেগাহার্টজ স্পেকট্রামের ৩.৫ গিগাহার্টজ ব্যান্ড ব্যবহারের অনুমতি চেয়েছে। বিজনেস স্ট্যান্ডার্ড রিপোর্ট অনুযায়ী জিও ভারতের কতকগুলি নির্বাচিত শহরে 5G স্পেকট্রাম ফিল্ড ট্রায়াল করবে।

রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড (RIL) জানিয়েছে, তাদের টেলিকম ইউনিট এই নতুন অত্যাধুনিক 5G প্রযুক্তি ১০০ শতাংশ ভারতে তৈরি করেছে এবং এটি ভবিষ্যতে ভারতে আরো দ্রুত গতির ডেটা সার্ভিস দেবে। RIL এর চেয়ারম্যান মুকেশ আম্বানি কোম্পানির তৃতীয় বার্ষিক মিটিংয়ে বলেন, তাদের নতুন 5G প্রযুক্তি সম্পূর্ণভাবে ভারতে তৈরি এবং ট্রায়ালের জন্য প্রস্তুত। আগামী বছরের মধ্যে 5G স্পেকট্রাম পাওয়া গেলেই তারা ভারতে 5G প্রযুক্তির ফিল্ড ট্রায়াল শুরু করবে।

এই ট্রায়ালের মাধ্যমে জিওর হাত ধরে ভারত, সম্পূর্ণভাবে নিজের দেশের প্রযুক্তিজাত 5G তৈরি করা দেশগোষ্ঠীর মাঝে নিজের নাম লেখাবে। এছাড়াও ট্রায়াল হলে জিও Huawei, ZTE, Ericsson, নোকিয়া এবং স্যামসাং এর মত গ্লোবাল টেলিকম গিয়ার মেকারদের সাথে ব্যবসা করতে পারবে। রিপোর্ট অনুযায়ী DoT এর পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে 5G স্পেকট্রাম এলেই সঙ্গে সঙ্গে জিও তাদের ট্রায়াল শুরু করতে পারে।

আমেরিকা, ব্রিটেন, চীন, অস্ট্রেলিয়া, সাউথ কোরিয়া সহ একাধিক ইউরোপীয় দেশ তাদের 5G পরিষেবা চালু করেছে। সেই নিরিখে ভারতে এখন পিছিয়ে। ভারতে ফাইভ-জি স্পেকট্রাম অকশান ২০২১ সাল অব্দি পিছিয়েছে। এর কারণ ভারতের নামিদামি প্রাইভেট টেলিকম সংস্থা এয়ারটেল ও ভোডাফোন অকশনে যোগ দেওয়ার কোনরকম কৌতুহল দেখায়নি। প্রসঙ্গত জিও এর আগেও DoT এর থেকে তাদের নিজ প্রযুক্তিতে তৈরি 5G ট্রায়ালের অনুমতি চেয়েছিল। তারা DoT কে তাদের প্রযুক্তি ও প্রাসঙ্গিক ইউজ কেস সিনারিও বর্ণনা করেছিল, কিন্তু হুয়াওয়ের কিছু সমস্যার জন্য সেই ট্রায়াল এখনো সম্পন্ন হয়নি।