জিও, ভোডাফোন ও এয়ারটেলের ১ বছরের ধামাকা প্ল্যান, আনলিমিটেড কল ও রোজ ২ জিবি পর্যন্ত ডেটা

গতকালই রিলায়েন্স জিও তাদের ২,৩৯৯ টাকার প্ল্যান লঞ্চ করেছে। এই প্ল্যানের ভ্যালিডিটি ৩৬৫ দিন। এখানে কোম্পানি রোজ ২ জিবি ডেটা অফার করছে। এর আগে ভোডাফোন-আইডিয়া ও এয়ারটেল ৩৬৫ দিনের প্ল্যান এনেছিল। যেখানে সমস্ত নেটওয়ার্কে আনলিমিটেড কল অফার করা হয়। তো আসুন দেখে নিই জিও নাকি ভোডাফোন আইডিয়া নাকি এয়ারটেল, ৩৬৫ দিনের প্ল্যানে কে এগিয়ে।

রিলায়েন্স জিও ২,৩৯৯ টাকার প্ল্যান :

২,৩৯৯ টাকার প্ল্যানে ৩৬৫ দিন ভ্যালিডিটি অফার করছে জিও। এই প্ল্যানে গ্রাহকরা প্রতিদিন ২ জিবি ডেটা পাবে। অর্থাৎ মোট ৭৩০ জিবি ডেটা পাওয়া যাবে। এরসাথে রোজ মিলবে ১০০ এসএমএস। আবার এখানে জিও থেকে জিও আনলিমিটেড কল ও জিও থেকে অন্য নেটওয়ার্কে কলের জন্য ১২,০০০ মিনিট পাওয়া যাবে।

এয়ারটেল ২৩৯৮ টাকার বার্ষিক প্ল্যান :

এয়ারটেল তাদের লম্বা বৈধতার প্ল্যানে প্রতিদিন ১.৫ জিবি ডেটা ও ১০০ এসএমএস অফার করে। এই প্ল্যানের বৈধতা ৩৬৫ দিন। এখানে গ্রাহকরা সমস্ত নেটওয়ার্কে আনলিমিটেড কলের সুবিধা পাবে।

ভোডাফোন-আইডিয়া ২৩৯৯ টাকার বার্ষিক প্ল্যান :

ভোডাফোন-আইডিয়া তাদের এই প্ল্যানে ৩৬৫ দিন ভ্যালিডিটি দেয়। এছাড়াও এখানে আনলিমিটেড কলের বেনিফিট উপলব্ধ। আবার এই প্ল্যানে রোজ ১.৫ জিবি ডেটা ও ১০০ এসএমএস দেওয়া হয়।

তাহলে আমরা দেখলাম জিও ডেটা সুবিধা বেশি দিলেও কলিং পরিষেবায় পিছিয়ে আছে। কারণ এখানে সমস্ত নেটওয়ার্কে আনলিমিটেড কলিং বেনিফিট নেই। যদিও মাসে ১,০০০ মিনিট জিও অফার করছে অন্য নেটওয়ার্কে কল করার জন্য। এছাড়াও এখানে প্রতিদিন ৫০০ এমবি বেশি ডেটা পাওয়া যাচ্ছে। তাই জিও কেই ৩৬৫ দিনের প্ল্যানে এগিয়ে রাখা যায়।

টেকগাপের মেম্বাররা ও সদ্য যোগ দেওয়া লেখকরা এই প্রোফাইলের মাধ্যমে টেকনোলজির সমস্ত রকম খুঁটিনাটি আপনাদের সামনে আনে।