রিলায়েন্স জিও নাকি এয়ারটেল, ১০০ টাকা ও ১৫০ টাকা ও ২০০ টাকার রেঞ্জে কে বেশি সুবিধা

গ্রাহক ধরার লক্ষ্যে টেলিকম কোম্পানিগুলির মধ্যে সবসময় প্রতিযোগিতা চলে। কে কত সস্তায় প্ল্যান গ্রাহকদের অফার করতে পারে টেলিকম কোম্পানিগুলির মধ্যে এই রেষারেষি নতুন নয়। তবে গত বছর ডিসেম্বর নতুন প্ল্যান আনার পর রিলায়েন্স জিও-র তুলনায় কিছু কম প্ল্যান অফার করছিল এয়ারটেল। যদিও পরবর্তীতে নতুন নতুন প্ল্যান এনে সে ঘাটতি মিটিয়ে দিচ্ছে এয়ারটেল। আজ তারা ৯৯ টাকার, ১২৯ টাকার ও ১৯৯ টাকার প্ল্যান এনেছে। প্রায় একই মূল্য রিলায়েন্স জিও ও তাদের গ্রাহকদের প্ল্যান অফার করে। আসুন দেখে নিই কোন কোন তাদের গ্রাহকদের এই প্ল্যানগুলি বেশি বেনিফিট দিচ্ছে।

রিলায়েন্স জিও ৯৮ টাকার প্ল্যান :

জিওর ৯৮ টাকার প্ল্যানের ভ্যালিডিটি ২৮ দিন। এখানে জিও থেকে জিও আনলিমিটেড কল করার সুযোগ আছে। অন্য নেটওয়ার্কে কল করার জন্য টপআপ রিচার্জ করতে হবে। আবার এখানে মোট ২ জিবি ডেটা ও ৩০০ এসএমএস দেওয়া হয়।

এয়ারটেল ৯৯ টাকার প্ল্যান :

এয়ারটেলের ৯৯ টাকার প্ল্যানের ভ্যালিডিটি ১৮ দিন। এখানে মোট ১ জিবি ডেটা ও ১০০ এসএমএস পাওয়া যাবে। আবার যেকোনো নেটওয়ার্কে আনলিমিটেড কলের সুবিধা উপলব্ধ।

রিলায়েন্স জিও ১২৯ টাকার প্ল্যান :

এই প্ল্যানে গ্রাহকরা জিও থেকে জিও আনলিমিটেড কলের সুবিধা মিলবে। আবার নন জিও মিনিট হিসাবে মিলবে ১,০০০ মিনিট। এছাড়াও এই প্ল্যানে গ্রাহকরা মোট ২ জিবি ইন্টারনেট ডেটা পাবে। সাথে ৩০০ এসএমএস  মিলবে। এই প্ল্যানের ভ্যালিডিটি ২৮ দিন।

এয়ারটেল ১২৯ টাকার প্ল্যান :

এয়ারটেলের ১২৯ টাকার প্ল্যানের ভ্যালিডিটি ২৪ দিন। এখানে সমস্ত নেটওয়ার্কে আনলিমিটেড কলের সুবিধা পাওয়া যাবে। এরসাথে এখানে মোট ৩০০ এসএমএস ও ১ জিবি ডেটা দেওয়া হয়।

রিলায়েন্স জিও ১৯৯ টাকার প্ল্যান :

রিলায়েন্স জিওর ২৮ দিনের সবচেয়ে সস্তা ১.৫ জিবি ডেটা প্ল্যান হলো ১৯৯ টাকা। এখানে জিও থেকে জিও আনলিমিটেড কল এবং জিও থেকে অন্য নেটওয়ার্কে কলের জন্য ১,০০০ মিনিট পাওয়া যাবে। এছাড়াও রোজ ১০০ এমএসএম দেওয়া হবে।

এয়ারটেল ১৯৯ টাকার প্ল্যান :

এয়ারটেলের ১৯৯ টাকার প্ল্যানের ভ্যালিডিটি ২৪ দিন। এখানে রোজ ১ জিবি ডেটা ও ১০০ এসএমএস পাওয়া যায়। আবার সমস্ত নেটওয়ার্কে আনলিমিটেড কলের সুবিধা উপলব্ধ।

জিও নাকি এয়ারটেল কারা দেয় বেশি সুবিধা :

আমরা দেখলাম রিলায়েন্স জিও সমস্ত প্ল্যানেই এয়ারটেলের থেকে বেশি সুবিধা দিচ্ছে, কেবল কল ছাড়া। কারণ এয়ারটেল সমস্ত প্ল্যানেই আনলিমিটেড কলিং বেনিফিট দিচ্ছে। তাই যদি আপনি অন্য নেটওয়ার্কে বেশি কল করে থাকেন তাহলে এয়ারটেল আপনার জন্য সেরা হবে। অন্যথায় আপনি জিও ব্যবহার করতে পারেন।