Samsung Galaxy Book Flex 2 Alpha ল্যাপটপ ইন্টেল প্রসেসর ও অন্যান্য অত্যাধুনিক ফিচারসহ লঞ্চ হল

samsung-galaxy-book-flex-2-alpha-launched-with-intel-i7-cpu-battery-price-specifications

Samsung তাদের গ্যালাক্সি বুক সিরিজের প্রোডাক্টের তালিকা বাড়িয়েই চলেছে। হালফিলে অনুষ্ঠিত হওয়া ‘Galaxy Unpacked’ ইভেন্টে টেক জায়ান্ট সংস্থাটি, তাদের ল্যাপটপ সম্ভারে Galaxy Book, Galaxy Book Pro, Galaxy Book Pro 360 এবং Galaxy Book Odyssey কে যুক্ত করেছিল। দক্ষিণ কোরিয়ান কোম্পানিটি এবার এই সিরিজের নবতম সংযোজন হিসেবে Galaxy Book Flex 2 Alpha এর ওপর থেকে পর্দা সরালো। আপাতত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ল্যাপটপটির প্রি-অর্ডার শুরু হয়েছে। পূর্ববর্তী গ্যালাক্সি বুক ফ্লেক্স মডেলের ন্যায় এই ল্যাপটপটিও ২-ইন-১ কনভার্টেবল ডিজাইন সহ এসেছে। গ্যালাক্সি বুক ফ্লেক্স ২ আলফা তে আছে ১১তম প্রজন্মের ইন্টেল কোর i5 বা i7 প্রসেসর, ইন্টেল আইরিস এক্সই (Iris Xe) গ্রাফিক্স।

Samsung Galaxy Book Flex 2 Alpha দাম ও লভ্যতা :

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে গ্যালাক্সি বুক ফ্লেক্স ২ আলফা ল্যাপটপটি সরাসরি স্যামসাং -এর অফিসিয়াল ওয়েবসাইট থেকে প্রি-বুক করা যাচ্ছে। গ্যালাক্সি বুক সিরিজের নতুন ল্যাপটপটি মূলত ২টি ভ্যারিয়েন্টে উপলব্ধ। যার মধ্যে, ইন্টেল কোর i5 প্রসেসর যুক্ত মডেলটির প্রারম্ভিক মূল্য রাখা হয়েছে ৮৪৯ ডলার (প্রায় ৬৩,০০০ টাকা) এবং ইন্টেল কোর i7 প্রসেসর যুক্ত মডেলটির দাম শুরু হচ্ছে ১,০৪৯ ডলার থেকে (প্রায় ৭৭,৭০০ টাকা)। ল্যাপটপটি ব্ল্যাক ও সিলভার কালারে পাওয়া যাবে।

Samsung Galaxy Book Flex 2 Alpha স্পেসিফিকেশান :

গ্যালাক্সি বুক ফ্লেক্স ২ আলফা মডেলটিকে চুপিচুপি লঞ্চ করা হলেও, এতে থাকা আকর্ষণীয় ফিচার কিন্তু ইউজারদের মধ্যে যথেষ্ট সাড়া ফেলে দিয়েছে। গ্যালাক্সি বুক ফ্লেক্স ২ আলফা ল্যাপটপটর ওজন ১.১৮ কেজি। ২-ইন-১ কনভার্টেবল ডিজাইন সহ আসা এই ল্যাপটপটিকে ক্রেতারা ১৩.৩ ইঞ্চি ও ১৫.৬ ইঞ্চির দুটি স্ক্রিন সাইজে পেয়ে যাবেন। ল্যাপটপের ডিসপ্লে -তে রয়েছে, ১,৯২০x১,০৮০ পিক্সেল রেজোলিউশন যুক্ত QLED FHD+ টাচ স্ক্রিন প্যানেল, যা ইনডোর মোডে ৪০০ নিটস ও আউটডোর মোডে ৬০০ নিটস অব্দি স্ক্রিন ব্রাইটনেস সরবরাহ করবে। এছাড়া, টাচ স্ক্রিন প্যানেলে কাজ করার জন্য এতে থাকছে এস পেন (S Pen) সাপোর্টও। স্যামসাং জানিয়েছে, গ্যালাক্সি বুক সিরিজের এই মডেলটির অন্যতম বিশেষত্ব হলো, এটির স্ক্রিনকে ৩৬০° পর্যন্ত টিল্ট করা সম্ভব।

হার্ডওয়ারের প্রসঙ্গে বললে, এই ল্যাপটপটি ১১তম প্রজন্মের ইন্টেল কোর i5-1135G7 বা i7-1165G7 প্রসেসর চালিত হবে। এটিতে থাকছে উইন্ডোজ ১০ হোম অপারেটিং সিস্টেম। ইন্টেল কোর i5 প্রসেসর যুক্ত মডেলটিতে ৮ জিবি অব্দি LPDDR4x র‍্যাম এবং ২৫৬ জিবি অব্দি এসএসডি স্টোরেজ আছে। অন্যদিকে, ইন্টেল কোর i7 প্রসেসর যুক্ত মডেলটিতে থাকছে ১৬ জিবি অব্দি LPDDR4x র‍্যাম এবং ৫১২ জিবি অব্দি এসএসডি স্টোরেজ।

এবার আসা যাক, কী-প্যাডের প্রসঙ্গে, Samsung Galaxy Book Flex 2 Alpha ল্যাপটপে একটি অ্যালুমিনিয়াম বিল্ড ব্যাকলিট কী-বোর্ড থাকছে এবং এটির ঠিক নিচেই রয়েছে তুলনামূলক বড়ো সাইজের একটি কাচের ট্র্যাকপ্যাড। ভিডিও কলিং -এর সুবিধার্থে এই ল্যাপটপের স্ক্রিনের উপরেই থাকছে একটি ৭২০পি ওয়েবক্যাম। ইউজাররা এতে পেয়ে যাবেন ডুয়াল-অ্যারে (dual-array) মাইক্রোফোন এবং ডলবি অ্যাটমোস অডিও যুক্ত দুটি ১.৫ ওয়াট স্টেরিও স্পিকার (stereo speakers)।

ইউজারদের ব্যক্তিগত ডেটাগুলিকে সুরক্ষিত রাখতে এতে থাকছে একটি ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। এছাড়া, কনেক্টিভিটির জন্য গ্যালাক্সি বুক সিরিজের নতুন মডেলটিতে, ওয়াই-ফাই ৬, ব্লুটুথ ভি৫.১, দুটি ইউএসবি ৩.২ টাইপ-এ পোর্ট, একটি ইউএসবি টাইপ-সি পোর্ট, একটি এইচডিএমআই (HDMI) পোর্ট, একটি মাইক্রোএসডি (microSD) কার্ড স্লট এবং একটি ৩.৫ মিমি হেডফোন জ্যাক অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।

তদুপরি, স্যামসাং -এর দাবি, ল্যাপটপে একটি ৫৪ ওয়াট পাওয়ার ক্যাপাসিটিযুক্ত উন্নতমানের ব্যাটারি আছে, যা একক চার্জে ১৮.৫ ঘন্টা পর্যন্ত ডিভাইসটিকে সক্রিয় রাখবে। এতে ৪০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করবে। শুধু তাই নয়, এতে স্যামসাং গ্যালারি (Samsung Gallery), ডেক্স (Dex), ফ্লো (Flow), নোটস (Notes), রিকোভারি (Recovery), আপডেট (Update) – এর মতো কিছু সফটওয়্যারক লোড থাকবে।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন