কানে সংক্রমণ দেখা দিচ্ছে, Galaxy Buds Pro ও Galaxy Buds 2 ব্যবহারকারীদের টাকা ফেরাচ্ছে Samsung

Samsung Galaxy Buds Pro, Samsung Galaxy Buds 2 ব্যবহারকারীদের কানে সংক্রমণ দেখা দিচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে

samsung-galaxy-buds-pro-galaxy-buds-2-user-getting-refund-for-ear-infections

বর্তমানে বাজারে উপলব্ধ সেরা ট্রুলি ওয়্যারলেস ইয়ারফোনের তালিকায় Samsung Galaxy Buds Pro এবং Samsung Galaxy Buds 2 প্রোডাক্ট দুটির নাম বেশ উপরের দিকেই থাকবে। আর সেকারণে ক্রেতাদের মধ্যেও এদের যথেষ্ট চাহিদা রয়েছে। তবে এবার ইয়ারফোন দুটির বিরুদ্ধে যে অভিযোগ উঠেছে তাতে প্রস্তুতকারী সংস্থা হিসেবে Samsung নড়েচড়ে বসতে বাধ্য! নইলে ভবিষ্যতে সংস্থার সুনামে কালির দাগ লাগতে পারে বলে প্রযুক্তিপ্রেমীদের অভিমত।

Samsung Galaxy Buds Pro, Samsung Galaxy Buds 2 ব্যবহারকারীদের কানে সংক্রমণ দেখা দিচ্ছে

আজ্ঞে হ্যাঁ! স্যামসাং গ্যালাক্সি বাড প্রো এবং স্যামসাং গ্যালাক্সি বাড ২ এমন মারাত্মক অভিযোগের মুখোমুখি হয়েছে। প্রোডাক্ট দুটি ব্যবহারের পর ক্রেতাদের একাংশ গুরুতর কানের সংক্রমণে ভোগার কথা জানিয়েছেন। এমনকি সেজন্য তাদের চিকিৎসকের পরামর্শ পর্যন্ত নিতে হয়েছে বলে খবর। অবশ্য ঠিক কি কারণে এই সংক্রমণের সমস্যা দেখা দিচ্ছে সেটা এখনো স্পষ্ট নয়। তবে পণ্য দুটি তৈরীর ক্ষেত্রে ব্যবহৃত কোনো উপাদানই যে এই সংক্রমণের জন্য দায়ী সেটা বুঝতে বিশেষ অসুবিধে হয়না।

উপরোক্ত সমস্যা সম্পর্কে অবহিত হলেও স্যামসাংয়ের পক্ষ থেকে বিষয়টি নিয়ে কোনো মন্তব্য করা হয়নি। তবে প্রোডাক্ট দুটির বেশ কিছু ক্রেতাকে তারা ইতিমধ্যেই মূল্য ফিরিয়ে দিয়েছে। যদিও একমাত্র অভিযোগকারী ক্রেতারাই রিফান্ড পেয়েছেন বলে শোনা গিয়েছে। আবার কয়েকটি বিশেষ ক্ষেত্রে স্যামসাং সংক্রমণে ভুক্তভোগীদের চিকিৎসার খরচা পর্যন্ত প্রদান করেছে বলে সংবাদ সূত্রে প্রকাশিত।

উল্লেখ্য, এর আগে বাজারে আসা স্যামসাং গ্যালাক্সি বাডের অন্যান্য সংস্করণ গুলিকে নিয়ে আলোচ্য ধরনের অভিযোগ ওঠেনি। সেক্ষেত্রে বর্তমান অবস্থা প্রস্তুতকারক সংস্থার পক্ষে যথেষ্ট অস্বস্তিদায়ক। তাই সংস্থা দ্রুত এর সমাধান খুঁজে পেতে চাইছে। যদিও আমেরিকার নিউ জার্সির কয়েকজন ক্রেতা কোম্পানীর বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করার ফলে পরিস্থিতি আরো জটিল হয়েছে। অভিযোগকারীদের দাবী, স্যামসাংয়ের আলোচ্য প্রোডাক্ট ব্যবহারের পর তাদের কানের সমস্যায় ভুগতে হয়েছে। এর উপসর্গ হিসেবে তারা চুলকুনি, জ্বালা করা, লাল ভাব, কান থেকে জলীয় পদার্থ নির্গমন সহ একাধিক অসুবিধের কথা উল্লেখ করেছেন। এই মুহূর্তে নিউ জার্সি কনজিউমার ফ্রড অ্যাক্টের অধীনে মামলাটির বিচার চলছে।

এদিকে Android Central তাদের রিপোর্টে সংক্রমণের কারণ হিসেবে Galaxy Buds Pro তৈরীতে নিকেল ব্যবহারকে দায়ী করেছে। এছাড়া আলোচ্য প্রোডাক্ট দুটি প্রস্তুতির ক্ষেত্রে Samsung অ্যাক্রিলেট (Acrylate) নামক একটি নতুন উপকরণ ব্যবহার করেছে যা সংক্রমণের কারণ হতে পারে বলে অনেকের ধারণা।

পরিশেষে সমস্ত পাঠকদের জন্য বলে রাখি, Samsung Galaxy Buds Pro বা Galaxy Buds 2 ব্যবহার করে আপনি বা আপনার পরিচিত কেউ যদি সংক্রমণের সমস্যায় ভুগে থাকেন, তবে সে ব্যাপারে সরাসরি কোম্পানিকে অভিযোগ জানান। এভাবে আপনারা পণ্যের মূল্য ফেরত পেতে পারেন।

One of the newest members of the Techgup Family. Soumo grew his liking for gadgets almost a decade back while searching for his first smartphone, and started writing about tech recently in 2020