Samsung Galaxy S21 Plus ফোনে থাকবে ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা, ফাঁস হল দাম

জানুয়ারিতেই লঞ্চ হতে পারে স্যামসাংয়ের Galaxy S21 সিরিজ। এই ফ্ল্যাগশিপ সিরিজের S21, S21+, এবং S21 Ultra ফোনগুলি কখন বাজারে আসবে, স্মার্টফোন অত্যুৎসাহীরা এখন তারই প্রতীক্ষায়। অফিসিয়াল লঞ্চের আগেই S21 সিরিজের স্পেসিফিকেশনও একে একে আমাদের সামনে এসেছে। এবার একটি ইটালিয়ান অনলাইন পাবলিকেশন থেকে Samsung Galaxy S21 Plus ফোনের ডাইমেনশন এবং সেইসঙ্গে একটি সাউথ কোরিয়ান ব্লগ থেকে S21 সিরিজের তিনটি ফোনেরই সম্ভাব্য দামের বিষয়ে তথ্য পাওয়া গেছে।

@Xleaks থেকে ডেভিডের সহযোগিতায় Coverpigtou, Samsung Galaxy S21 Plus ফোনটির ক্যাড রেন্ডার শেয়ার করা হয়েছে। সেই অনুযায়ী S21 Plus ফোনটি লম্বায় হবে ১৬১.৫৫ মিমি, চওড়ায় ৭৫.৬ মিমি, এবং ৭.৮৬ মিমি পাতলা। Samsung Galaxy S21 Plus ফোনের ট্রিপল ক্যামেরা সেটআপ উল্লম্বভাবে অবস্থিত থাকবে। এলইডি ফ্ল্যাশটি ক্যামেরা মডিউলের বাইরে প্রাইমারি ক্যামেরার পাশে রাখা হয়েছে। ফিজিক্যাল বাটনগুলি আছে ফোনের ডানদিকে। উল্লেখযোগ্য বিষয়, স্যামসাংয়ের গতবছরের ফ্ল্যাগশিপ S20 সিরিজের মতো এখানে ক্যামেরা থাকছে না। ফলে এখানে একটা নতুনত্ব চোখে পড়বে।

Samsung Galaxy S21+ Alleged CAD Renders
ছবি -CoverPigtou

সাউথ কোরিয়ান ব্লগ Naver থেকে স্যামসাং গ্যালাক্সি এস ২১ সিরিজের ফোনগুলির দাম প্রকাশ করা হয়েছে। S21 এর দাম হতে পারে ৮৫০ ডলার (প্রায় ৬২,৫০০ টাকা) থেকে ৮৯৯ ডলার (প্রায় ৬৬,১০০ টাকা)-এর মধ্যে। S21 Plus এর সম্ভাব্য দাম হবে ১০৫০ ডলার (প্রায় ৭৭,২০০ টাকা) থেকে ১০৯৯ ডলার (প্রায় ৮০,৮০০ টাকা)-এর মধ্যে। এই সিরিজের সবচেয়ে প্রিমিয়াম ভ্যারিয়েন্ট Galaxy S21 Ultra-র দাম রাখা হতে পারে ১২৫০ ডলার (প্রায় ৯২,০০০ টাকা) থেকে ১২৯৯ ডলার (প্রায় ৯৫,৬০০ টাকা)-এর মধ্যে। প্রসঙ্গত, S20 ফোনের লঞ্চ প্রাইস ছিল ৭৩,৫০০ টাকা। সেক্ষেত্রে S21 সিরিজ অপেক্ষাকৃত সস্তায় বাজারে আসবে বলে ধরে নেওয়া যায়।

Samsung Galaxy S21+ এর সম্ভাব্য স্পেসিফিকেশন

Samsung Galaxy S21+ ফোনে ৬.৭ ইঞ্চি এফএইচডি প্লাস এলটিপিএস ডিসপ্লে দেওয়া হবে। যার রিফ্রেশ রেট থাকবে ১২০ হার্টজ। ট্রিপল ক্যামেরা সেটআপের এই ফোনে থাকবে ১২ মেগাপিক্সেলের প্রাইমারি সেন্সর, ১২ মেগাপিক্সেলের আল্ট্রা ওয়াইড লেন্স, এবং ৬৪ মেগাপিক্সেলের টেলিফটো লেন্স। এই ফোনে পাওয়া যাবে ৪৮০০ এমএইচ ব্যাটারি। এতে  ২৫ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট থাকতে পারে বলে জানা গেছে। কানেক্টিভিটি অপশান হিসেবে থাকবে 5G, Wi-Fi 6, ব্লুটুথ ৫.১। এটি ফ্যান্টম সিলভার, ফ্যান্টম ব্ল্যাক, এবং ফ্যান্টম ভায়োলেট কালার অপশানের সাথে আসতে পারে।