১৩ দিন ধরে জলের তলায় থাকার পরও সচল Samsung Galaxy S21, দেখুন ভিডিও

samsung-galaxy-s21-water-test-video-after-13-days-still-working

বর্তমান সময়ের স্মার্টফোন, স্মার্টওয়াচ বা ইয়ারবাডগুলির অন্যতম একটি বিশেষ বৈশিষ্ট্য হল এগুলির ওয়াটার রেসিট্যান্ট টেকনোলজি। এখন প্রায় প্রতিটি প্রিমিয়াম স্মার্টফোন এবং স্মার্টওয়াচ, ইয়ারবাড জাতীয় অ্যাক্সেসরিজেই বিভিন্ন IPX রেটিং দেখা যায় এবং নির্মাতা সংস্থাগুলি তাদের প্রোডাক্টের জল-ধুলো প্রতিরোধী ক্ষমতা সম্পর্কে জমিয়ে প্রচার করে। সেক্ষেত্রে মাত্র কয়েক সপ্তাহ আগে বাজারে আসা নতুন Samsung Galaxy S21 স্মার্টফোনটি এই ক্ষমতার এমন চমকপ্রদ প্রদর্শন করেছে, যা শোনার পর আপনার চোখ কপালে উঠতে বাধ্য! আসলে একটানা ১৩ দিন জলে ডুবন্ত অবস্থায় থাকার পরও আরামসে চলতে দেখা যাচ্ছে Galaxy S21 কে।

ইউটিউবার, ফটো আউল টাইম ল্যাপস গত মাসে লঞ্চ হওয়া Samsung Galaxy S21 ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোনের জল প্রতিরোধক ক্ষমতা পরীক্ষা করছেন। গত ৯ই ফেব্রুয়ারী থেকে এই পরীক্ষার একটি লাইভ স্ট্রিমিংও চালু করেছে ইউটিউবারটি। সেখানেই দেখা গেছে এই ফোনটির ১৩ দিন পরেও দিব্যি সচল।

এই প্রসঙ্গে বলে রাখি, ১৪ই জানুয়ারি বাজারে পা রাখা স্যামসাংয়ের দীর্ঘ প্রতীক্ষিত গ্যালাক্সি এস ২১ ফোনটিতে জল এবং ধূলিকণা প্রতিরোধী IP68 রেটিং রয়েছে। ফোনটির সম্পর্কে দক্ষিণ কোরিয়ার সংস্থাটির দাবি এটি টাটকা জলে ১.৫ মিটার পর্যন্ত গভীরতায় ৩০ মিনিট অর্থাৎ আধ ঘণ্টা ধরে স্বচ্ছন্দে কাজ করে।

সেক্ষেত্রে উক্ত ইউটিউবারের পরীক্ষায় দেখা গেছে জলে ডুবে থাকা স্মার্টফোনের স্ক্রিনে চলমান টাইমারে ২ ঘন্টা + ৩০০ ঘন্টা সময় দেখা গেছে। এর মানে হল ফোনটি ৩০২ ঘন্টা পর্যন্ত সময় ধরে অর্থাৎ প্রায় ১৩ দিন ধরে ওই অবস্থায় অন রয়েছে।

ওই ইউটিউবার জানিয়েছে যে ফোনটিকে অ্যাকোরিয়ামে রেখে টেস্ট করা হচ্ছে এবং অ্যাকোরিয়ামের সাথে সংযুক্ত একটি ওয়্যারলেস চার্জিং প্যাড ব্যবহার করে ফোনটিকে চার্জ করা হচ্ছে । তবে মাঝে এক-দুবার তিনি ম্যানুয়ালি ফোনের স্টপওয়াচ টাইমারটিকে রিস্টার্ট করেছেন। সেক্ষেত্রে টেস্টের সময় এবং টেস্টের পরে ফোনটি তো সচল রয়েছেই পাশাপাশি এর স্পিকার এখনও পর্যন্ত ঠিকঠাক কাজ করছে বলে দাবি করেছে ওই ইউটিউবার।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন