জুলাইয়ে আসছে Samsung Galaxy Z Fold 3 এবং Galaxy Z Flip 3 ফোল্ডিং ফোন

samsung-galaxy-z-fold-3-and-galaxy-z-flip-3-launch-date-tipped-july-this-year.jpg

দক্ষিণ কোরিয়ান স্মার্টফোন কোম্পানি Samsung নতুন বছরে Galaxy Z Fold 3 এবং Galaxy Z Flip 3 ফোল্ডিং ফোনগুলি আনার পরিকল্পনা নিচ্ছে। গ্যালাক্সি জেড ফোল্ড ৩ ফোল্ডিং ফোনটি গতবছরে লঞ্চ করা গ্যালাক্সি জেড ফোল্ড ২ এর আপগ্রেড ভার্সন হবে। আবার গ্যালাক্সি জেড ফ্লিপ এর উত্তরসূরি হিসাবে আসবে গ্যালাক্সি জেড ফ্লিপ ৩। ইন্টারনেটে ইতিমধ্যেই এই ফোন দুটি সম্পর্কে গুরুর্ত্বপূর্ণ কিছু তথ্য শেয়ার করেছে টিপ্সটাররা। তবে এবার Samsung Galaxy Z Fold 3 এবং Galaxy Z Flip 3 এর লঞ্চের সময় সামনে এল।

জনপ্রিয় টিপ্সটার Ice Universe একটি টুইট করে জানিয়েছেন, আগামী জুলাইয়ে এই দুটি ফোল্ডিং ফোন বাজারে লঞ্চ হতে পারে। তিনি বলছেন ‘ গ্যালাক্সি জেড ফোল্ড ৩ ও গ্যালাক্সি জেড ফ্লিপ ৩ এর জন্য আমাদের আর ৫ মাস অপেক্ষা করতে হতে পারে’।’ যদিও তিনি ফোন দুটির স্পেসিফিকেশন সম্পর্কে কিছু বলেননি।

তবে কিছুদিন আগে স্যামসাং গ্যালাক্সি ফোল্ড ৩ এর রেন্ডার সামনে এসেছিল। যেখান থেকে জানা গিয়েছিল এই ফোনে S Pen সাপোর্ট থাকবে। মনে করা হচ্ছে এই ফোনটি খুললে ৭.৫৫ ইঞ্চি ডিসপ্লে পাওয়া যাবে। আবার এর ভিতরে থাকবে ৬.২১ ইঞ্চি ডিসপ্লে। এছাড়া ফোনটি এক্সিনস ২১০০ প্রসেসর সহ আসতে পারে। টিপ্সটার MauriQHD কিছুদিন আগে জানিয়েছিলেন, এই ফোনের দাম পূর্বসূরী Samsung Galaxy Z Fold 2 এর মত হবে। প্রসঙ্গত গ্যালাক্সি জেড ফোল্ড ২ লঞ্চ হয়েছিল ২ হাজার ডলারে (ভারতে ফোনটির দাম ১,৪৯,৯৯৯ টাকা)। 

এদিকে টিপ্সটার @TheGalox জানিয়েছিলেন, Samsung Galaxy Z Flip 3 ফোনটি ১,৪৯৯ ডলার (প্রায় ১,০৯,৬০০ টাকা) মূল্যে বাজারে আসতে পারে, যা আগের ভার্সনের থেকে ৫০ ডলার বেশি। যদিও ভারতীয় মূল্য অনুসারে, এটি অনেকটাই বেশি। কারণ ভারতে Galaxy Z Flip ফোনটি ৮৪,৯৯৯ টাকায় পাওয়া যায়। এতে ১২০ হার্টজ ডায়নামিক অ্যামোলেড ডিসপ্লে ও স্ন্যাপড্রাগন ৮৮৮ প্রসেসর ব্যবহার করা হবে।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন