Homeনিউজভারতের সবচেয়ে সস্তা 5G ফোন Realme 8 কে টেক্কা দিতে আসছে Samsung Galaxy A22

ভারতের সবচেয়ে সস্তা 5G ফোন Realme 8 কে টেক্কা দিতে আসছে Samsung Galaxy A22

এই মুহূর্তে ভারতের সবচেয়ে সস্তা 5G ফোনের নাম Realme 8 5G। এই ফোনের ৪ জিবি র‍্যাম ও ৬৪ জিবি স্টোরেজের দাম ১৩,৯৯৯ টাকা। কিন্তু এবার এই স্মার্টফোনটিকে কড়া টক্কর দিতে আসছে Samsung -এর Galaxy A22। কারণ রিপোর্ট অনুযায়ী, Samsung তাদের Galaxy A সিরিজের এই ৫জি স্মার্টফোনটিকে অতিশয় কম দামে লঞ্চ করতে চলেছে। তবে দাম কম হলেও Samsung Galaxy A22 5G ফোনে কিন্তু ফিচার ঠাসা থাকবে। জানা গেছে ফোনটি মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ৭০০ প্রসেসর, সাইড মাউন্টেড ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর, ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরার সহ আসবে। আগামী কয়েক মাসের মধ্যেই Samsung Galaxy A22 5G বাজারে পা রাখবে বলে আশা করা হচ্ছে। আসুন এই ফোনের সম্ভাব্য দামও স্পেসিফিকেশন জেনে নিই।

ভারতের সবথেকে সস্তার ৫জি স্মার্টফোন হতে পারে Samsung Galaxy A22:

সম্প্রতি ফাঁস হওয়া রিপোর্ট অনুযায়ী, স্যামসাং -এর গ্যালাক্সি এ২২ মডেলটি সবথেকে সস্তার ৫জি স্মার্টফোন হিসাবে লঞ্চ হতে পারে। এখনো অবধি স্যামসাং গ্যালাক্সি এ৩২ ৫জি স্মার্টফোনটি সংস্থার সবচেয়ে সাশ্রয়ী মূল্যের ৫জি ফোন ছিল। যার দাম ২৭৯ ডলার বা প্রায় ২০,৩০০ টাকা। কিন্তু হালফিলে পাওয়া রিপোর্ট বলছে, আপকামিং স্যামসাং গ্যালাক্সি এ২২ ৫জি মডেলটি মাত্র ১৮০ ডলার বা প্রায় ১৩,১০০ টাকায় লঞ্চ হতে পারে। আর যদি রিপোর্টের তথ্য সঠিক হয় তবে, বাজারে উপলব্ধ ৫জি স্মার্টফোনগুলির মধ্যে এটি সব থেকে সস্তার ৫জি কানেক্টিভিটির স্মার্টফোন হবে। স্যামসাং মূলত ভারত এবং এশিয়ার অন্যান্য দেশগুলিতে এই স্মার্টফোনটিকে নিয়ে আসার পরিকল্পনা করছে।

Samsung Galaxy A22 5G স্মার্টফোনের স্পেসিফিকেশন:

রিপোর্ট অনুযায়ী, স্যামসাং গ্যালাক্সি এ২২ ফোনটি দুটি কানেক্টিভিটি অপশনে আসবে- ৪জি এবং ৫জি। এই দুটি ভ্যারিয়েন্টের মডেল নম্বর যথাক্রমে SM-A225F এবং SM-A226B। এরমধ্যে ৫জি মডেলটির আয়তন হবে ১৬৭.২x৭৬.৪x৮.৭ মিমি এবং এর ওজন ২০৫ গ্রাম। এই ডিভাইসটিতে ৬.৪ ইঞ্চি ডিসপ্লে দেখা যেতে পারে। আবার এর ডিজাইন হবে ওয়াটার ড্রপ নচ, স্যামসাং -এর ভাষায় যা ইনফিনিটি-ইউ নাম পরিচিত। প্রসেসর হিসাবে এতে মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ৭০০ ব্যবহার করা হবে। ফোনটি, ওয়ান ইউআই ৩.১ (One UI 3.1) সহ অ্যান্ড্রয়েড ১১ অপারেটিং সিস্টেমে চলবে।

স্যামসাং গ্যালাক্সি এ২২ ৫জি ফোনের পিছনে ট্রিপল ক্যামেরা সেটআপ দেখা যেতে পারে। এই ক্যামেরাগুলি হতে পারে ৪৮ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর + ৮ মেগাপিক্সেল সেন্সর + ২ মেগাপিক্সেলের সেন্সর। ভিডিও কলিং এবং সেলফি তোলার সুবিধার্থে এতে, ১৩ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরাও পাওয়া যেতে পারে। অন্যদিকে, সিকিউরিটির জন্য ফোনটিতে থাকতে পারে সাইট মাউন্টেড ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। ফোনটি ৫,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি সহ আসতে পারে। যার সাথে ১৫ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করবে।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন

আরও পড়ুন