কয়েকটা ভিডিও দেখলেই দ্রুত শেষ হচ্ছে ইন্টারনেট? এভাবে বাঁচান ডেটা

দাম বাড়ছে সবকিছুর,সাথে আপনার মূল্যবান স্মার্টফোনের ইন্টারনেট পরিষেবার। বিগত বছরগুলোতেও তেমন ভাবেই আকাশ ছুঁয়েছে মোবাইল ডেটার ব্যবহার। প্রতিনিয়ত আরও বেশি উন্নত পরিষেবার নামে আপনার স্মার্টফোনের অ্যাপ্লিকেশন গুলি আপডেটের জন্য বেশি ডেটা দাবী করছে,এর সাথে অনলাইনে ভিডিও স্টিমিং এর ফলে ডেটা অনায়াসে কমছে আপনার। তাই ডেটা বাঁচাতে জেনে নিন সহজ কিছু উপায় ।

১ . অ্যান্ড্রয়েড সেটিংসে ডেটা ব্যবহার সীমাবদ্ধ করুন :

আপনি সেটিংস অ্যাপের মাধ্যমে অ্যান্ড্রয়েডে মোবাইল ডেটা ব্যবহার সীমাবদ্ধ করতে পারেন। এর জন্য আপনাকে যেতে হবে সেটিংসে এরপর ডেটা ইউজেজ ও ডেটা সীমা তে ক্লিক করে একমাসে আপনি কতটুকু ডেটা ব্যবহার করতে চান এমন সর্বোচ্চ পরিমাণের ডেটা সীমাবদ্ধ করে ফেলুন।

২ . অ্যাপ্লিকেশনের ব্যাকগ্রাউন্ডের ডেটা সীমাবদ্ধকরন :

কিছু অ্যাপ্লিকেশন আছে যা স্মার্টফোনে ব্যবহার না করা অবস্থা তেও আপনার অজান্তেই মোবাইল ডেটা গ্রাস করে। তাই এ সমস্যার মোকাবিলায় আপনাকে যেতে হবে সেটিংস এ। এরপর ডেটা ব্যবহারে গিয়ে কোন অ্যাপ্লিকেশনটি কতটা ডেটা খরচ করে তা আপনি পরিসংখ্যান দেখতে পারবেন।
এরপর যেই অ্যাপটি আপনার অদরকারি এবং বেশি ডেটা ব্যাকগ্রাউন্ডে খরচ হচ্ছে তা আনইনস্টল করে দিন।

৩.ক্রোমে ডেটা সেভার ব্যবহার করুন :

গুগল ক্রোম অন্যতম জনপ্রিয় অ্যান্ড্রয়েড ব্রাউজার। এটিতে একটি ইনবিল্ট বৈশিষ্ট্য রয়েছে যা অ্যান্ড্রয়েডে ডেটা ব্যবহারকে উল্লেখযোগ্যভাবে হ্রাস করতে পারে। ডেটা সেভার ব্যবহার করতে, ক্রোম খুলুন, উপরের ডানদিকে কোণায় থ্রি-ডট মেনুতে ক্লিক করুন। সেটিংসে যান এবং ডেটা সেভারে স্ক্রোল করুন।

৪ . কেবলমাত্র ওয়াইফাই এর মাধ্যমে অ্যাপ্লিকেশনগুলি আপডেট করুন :

মোবাইল ডেটা ব্যবহার হ্রাস করার সবচেয়ে কার্যকর উপায়গুলির মধ্যে একটি হল প্লে স্টোরে স্বয়ংক্রিয় অ্যাপ্লিকেশন আপডেটগুলি অক্ষম করা। এবং কেবলমাত্র ওয়াই-ফাইয়ের মাধ্যমে অ্যাপ্লিকেশনগুলিকে অটো-আপডেট করুন।

৫. আপনার স্ট্রিমিং পরিষেবাগুলির ব্যবহার সীমিত করুন :

স্ট্রিমিং হওয়া গান এবং ভিডিওগুলি হল ডেটা নষ্ট করে এবং পাশাপাশি উচ্চ-মানের চিত্রও। আপনি যখন মোবাইল ডেটা ব্যবহার করছেন তখন এগুলি এড়াতে চেষ্টা করুন।

৬ . বিকল্প অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার করুন :

অ্যাপ্লিকেশনগুলির ব্যবহার আপনার ডেটা ব্যবহারকে মারাত্মকভাবে প্রভাবিত করতে পারে। আপনি বুঝতে পারবেন না যে প্রতিবার আপনি যখনই ক্লিক করেন গুগল ফটোগুলি আপনার ফটোগুলির ব্যাকগ্রাউন্ডে সিঙ্ক করছে। ফেসবুক এবং ইনস্টাগ্রামের মতো সামাজিক মিডিয়া অ্যাপগুলি প্রচুর ডেটা গ্রাস করে। এই অ্যাপগুলিতে ভিডিও এবং জিআইএফ না দেখার চেষ্টা করুন।

কিছু অ্যাপ্লিকেশনের বিকল্প ব্যবহার করার চেষ্টা করুন যা অল্প ডেটা গ্রহণ করার সময় প্রয়োজনীয় ফাংশনগুলি সম্পাদন করবে। ফেসবুক লাইট ফেসবুক অ্যাপ্লিকেশনের একটি অত্যন্ত হালকা বিকল্প।

৭ . ম্যালওয়ারটি বের করে দিন :

কিছু ভাল অ্যান্টিভাইরাস অ্যাপ্লিকেশন সহ ম্যালওয়ারের জন্য নিয়মিত আপনার অ্যান্ড্রয়েড ফোনটি স্ক্যান করুন। এটি করার ফলে আপনাকে আপনার অ্যান্ড্রয়েড ফোনটি দ্রুত করতে সহায়তা করবে।
এই সকল পদ্ধতিতে আপনি আপনার ডেটা সংরক্ষণ করতে পারবেন। ফলত,আপনার অজান্তেই আপনার ডেটা চুরি হয়ে যাবে না।

সমস্ত খবরের আপডেট পেতে এখানে লাইক দিন!