Xiaomi 12 Ultra-র ক্যামেরা চমকে দেবে আপনাকে, থাকবে Leica-র লেন্স

Xiaomi ও Leica জোট বাঁধছে, Xiaomi 12 Ultra-তে Leica ইঞ্জিনিয়ারড ক্যামেরা দেওয়া হতে পারে

xiaomi-12-ultra-with-leica-camera-lens-tipped-partnership

Nokia/Vivo-Zeiss, Huawei-Leica, কিংবা OnePlus-Hassselblad, একটি ক্যামেরা প্রস্তুতকারী সংস্থা এবং একটি স্মার্টফোন ব্র্যান্ডের মধ্যে পার্টনারশিপ কোনও নতুন বিষয় নয়। প্রযুক্তি ও কারিগরির নিরিখে স্মার্টফোনের ক্যামেরা যাতে ব্যবহারকারীদের মনে বিশেষ ছাপ ফেলতে পারে, সেই লক্ষ্যেই খ্যাতনামা ডিজিটাল ক্যামেরা লেন্স প্রতিষ্ঠানগুলির সাথে জোট বাঁধতে দেখা যায় নানা স্মার্টফোন ব্র্যান্ডকে। এক টিপস্টারের রিপোর্ট অনুযায়ী, Xiaomi 12 Ultra ফ্ল্যাগশিপ ফোনের ক্যামেরার জন্য শাওমি এবং Leica গাঁটছড়া বাঁধতে চলেছে।

নভেম্বরের অন্তিম দিন বা ডিসেম্বরের প্রথমে Qualcomm তাদের পরবর্তী প্রজন্মের হাই-এন্ড চিপসেট Snaodragon 898 ঘোষণা করবে বলে মনে করা হচ্ছে। রিপোর্ট অনুযায়ী, শাওমির পরবর্তী ফ্ল্যাগশিপ ফোন (Xiaomi 12) এই প্রসেসর দিয়ে বাজারে ছাড়া হতে পারে। এই লাইনআপে আসতে পারে Xiaomi 12 Pro ও Xiaomi 12 Ultra বলে আরও দু’টি হ্যান্ডসেট। তার মধ্যে Xiaomi 12 Ultra-তে Leica ইঞ্জিনিয়ারড ক্যামেরা দেওয়া হতে পারে। অর্থাৎ জোট বাঁধবে Xiaomi ও Leica।

প্রসঙ্গত, ২০১৯ সালে লেইকার সাথে যৌথ উদ্যোগে হুয়াওয়ে স্মার্টফোন লঞ্চ করে আসছে। তবে Huawei P50 সিরিজের পর দুই সংস্থা সম্পর্ক ছিন্ন করে। তারপর থেকেই জল্পনা চলতে থাকে যে, ক্যামেরার জন্য Honor, Xiaomi, বা Sharp-এর সঙ্গে Leica গাঁটছড়া বাঁধতে পারে।

এদিকে আনুষ্ঠানিক ভাবে ঘোষণা না হলেও, জনপ্রিয় চীনা টিপস্টার ডিজিটাল চ্যাট স্টেশনের ইঙ্গিত, আপকামিং Xiaomi 12 লাইনআপের ক্যামেরার জন্য শাওমি ও লেইকার মধ্যে চুক্তি সম্পূর্ণ। টিপস্টারের ওয়েইবো পোস্টে দেখা গিয়েছে, Xiaomi Mi 12 Ultra-র একটি ছবি। তার পিছনে সেকেন্ডারি ডিসপ্লের মধ্যে Leica ব্র্যান্ডিং আছে। অর্থাৎ Xiaomi 12 Ultra-র ক্যামেরা লেইকা কর্তৃক বিশেষ ভাবে অপ্টিমাইজ করা হবে বলেই ধরে নেওয়া যায়।

Xiaomi 12 Ultra: ক্যামেরা স্পেসিফিকেশনস

শাওমি ১২ আল্ট্রা ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপের সঙ্গে আসবে। প্রতিটি ক্যামেরা ৫০ মেগাপিক্সেলের। তার মধ্যে একটি ৫x অপটিক্যাল জুম-সহ ১/১.৫ ইঞ্চি পেরিস্কোপ লেন্স হবে।

টেকগাপে শুভ্রর প্রথম প্রযুক্তি বিষয়ক লেখায় হাতেখরি৷ স্নাতক স্তরের পড়াশোনার পাশাপাশি এখানেই চলতে থাকে শুভ্রর লেখালেখি৷ কলেজের অধ্যায় শেষ হওয়ার পর শুভ্র এখন টেকগাপের কনটেন্ট টিমের একজন গুরুত্বপূর্ণ সদস্য৷