Xiaomi ফোনে থাকবে না কোনো ব্যান হওয়া চীনা অ্যাপ, শীঘ্রই আসছে নতুন আপডেট

xiaomi-to-release-new-miui-update-to-remove-ban-chinese-app-including-clean-master

বেশ কয়েকদিন ধরে ইউজারদের ক্ষোভের মুখে পড়ছে জনপ্রিয় স্মার্টফোন নির্মাতা Xiaomi। আসলে গত জুন মাসে ভারত সরকার Clean Master সহ ৫৯টি চাইনিজ অ্যাপ ব্যান করে, এর মধ্যে শাওমিরও বেশ কয়েকটি অ্যাপ ছিল। কিন্তু এই ঘটনার পরেও শাওমির নতুন ডিভাইস কিনলে তাতে ব্যান হওয়া কয়েকটি অ্যাপ প্রি-ইনস্টলেড অবস্থায় থাকছিল, যদিও সেগুলি ম্যানুয়ালি আনইনস্টল করা যায়।

তবে ইউজারদের আর চিন্তার কোনো কারণ নেই! এবার শাওমি, তার ডিভাইসগুলিতে Mi Browser, Mi Video call বা Mi Community-এর মত ব্যান হওয়া প্রি-ইনস্টলেড অ্যাপগুলির ব্যাপারে সমাধান নিয়ে এসেছে। সংস্থাটি টুইটার পোস্টের মাধ্যমে জানিয়েছে, খুব শীঘ্রই কাস্টম ওএস MIUI এর একটি আপডেট আনা হবে, যার ফলে এই অ্যাপ্লিকেশনগুলি ডিভাইস থেকে অটোমেটিক রিমুভ হয়ে যাবে, তবে ইউজারদের একটু অপেক্ষা করতে হবে। আপাতত সংস্থাটি নতুন MIUI অ্যান্ড্রয়েড ভার্সনের ওপর কাজ করছে, আগামী কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই পর্যায়ক্রমে সেটি রোল আউট করা হবে।

আসলে শাওমি ডিভাইসগুলির সিকিউরিটি ম্যানেজারের ডেভেলপার হিসেবে Clean Master-এর নাম দেখাচ্ছিল। পরে একটি আপডেটের মাধ্যমে এই ডিটেইলস রিমুভ করা হয়। এবিষয়ে সংস্থাটি বলেছে, MIUI -এর নিজস্ব ক্লিনার অ্যাপ রয়েছে, যার সাথে ব্যান হওয়া ক্লিন-মাস্টার অ্যাপের কোনো সম্পর্ক নেই। যাতে বিভ্রান্তির সৃষ্টি না হয়, আপডেটের মাধ্যমে MIUI ক্লিনার অ্যাপ থেকে এই ডেফিনেশন সরিয়ে দেওয়া হচ্ছে।

এর আগেও Redmi এবং Poco ব্র্যান্ডের নির্মাতা সংস্থাটিও জানিয়েছিল, MIUI ক্লিনার অ্যাপটি ক্লিন-মাস্টার অ্যাপ্লিকেশন থেকে সম্পূর্ণ আলাদা। যাইহোক, Xiaomi India বলেছে তারা ভারত সরকারের তথ্য বা সুরক্ষার বিষয়ে নেওয়া সিদ্ধান্তের সাথে সহমত। তারা নিশ্চিত করেছে, ভারতীয় ইউজারদের ডেটা, কোনোভাবেই দেশের বাইরে বা তৃতীয় পক্ষের সাথে শেয়ার করেনা।