Yamaha YZF-R9: ভারতে সুপারস্পোর্ট মোটরসাইকেল আনার পরিকল্পনা ইয়ামাহার?

yamaha-yzf-r9-trademarked-in-india

ভারতে YZF-R9 নাম ব্যবহারের অধিকার পেল ইয়ামাহা (Yamaha)। চলতি বছরের প্রথমে জাপান এবং তারপরে ইউরোপ ও অস্ট্রেলিয়ায় নামটির জন্য নথিভুক্তকরণ সেরে রেখেছিল ইয়ামাহা। পরবর্তীতে সংস্থার তরফ থেকে এখানেও YZF-R9 নামটির জন্য আবেদন (ট্রেডমার্ক) জানানো হয়। অবশেষে সেই নাম ব্যবহারে সরকারি অনুমোদন পেয়েছে তারা।

ইয়ামাহা ওয়াইজিএফ-আর৯ ট্রেডমার্কের গুরুত্ব (Importance of Yamaha YZF-R9 trademark)

এতক্ষণে নিশ্চয় বুঝে যাওয়ার কথা, ভারতে ইয়ামাহার আপকামিং মোটরসাইকেলের নাম YZF-R9। এটি কোনও কমিউটার বা এন্ট্রি-লেভেল স্পোর্টস বাইক নয়। বরং মিডওয়েট সুপারস্পোর্ট মোটরসাইকেল হিসেবে আসার সম্ভাবনা সবচেয়ে বেশি।

প্রসঙ্গত, এক সময় ভারতে MT-09 এবং R1 এর মতো বড় ইঞ্জিন ক্যাপাসিটির পাওয়ারফুল মোটরসাইকেল বিক্রি করা ইয়ামাহা গত জুলাইয়ে জানিয়েছিল, ভারতে পারফরম্যান্স মেশিন (টু-হুইলার) নিয়ে আসার পরিকল্পনা তাদের নেই। ইয়ামাহা মোটর ইন্ডিয়া (Yamaha Motor India)-র সিনিয়র প্রেসিডেন্ট (সেলস ও মার্কেটিং) রবিন্দর সিং (Ravinder Singh)-এর মত ছিল, বড় বাইকের পরিবর্তে ১৫০ সিসি ও ২৫০ সিসি মোটরসাইকেলের বাজারে মনোনিবেশ করাই শ্রেয়। লভ্যাংশ বা বৃদ্ধি, দু’দিক থেকেই।

তবে প্রিমিয়াম বা দামি মোটরসাইকেলের বাজারে যে ভাবে কাওয়াসাকি (Kawasaki) ও ট্রায়াম্ফ (Triumph)-এর মতো সংস্থার অংশীদারিত্ব বাড়ছে, তাতে নতুন করে পারফরম্যান্সের উপর ফোকাস করে ১,০০০ সিসি-র কাছাকাছি ইঞ্জিনের সাথে নতুন মোটরসাইকেল এখানে নিয়ে আসতে পারে ইয়ামাহা। সে কারণেই নামকরণের জন্য YZF-R9 নথিভুক্তকরণ করা হয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে।

ইয়ামাহা ওয়াইজেডএফ-আর৯ কি এমটি-০৯ এর উপর ভিত্তি করে তৈরি হবে? (Is Yamaha YZF-R9 based on MT-09)

আর্ন্তজাতিক বাজারে MT-07 ভিত্তিক YZF R7 আত্মপ্রকাশ করার পর থেকেই এই সম্ভাবনার কথা বারে বারে উঠে এসেছিল। আবার YZF-R9 নামটির বিভিন্ন ট্রেডমার্ক অ্যাপ্লিকেশন জল্পনায় নতুন মাত্রা যোগ করেছিল। MT-09 এর উপর ভিত্তি করেই যে YZF-R9 তৈরি করা হতে পারে, সেই নিয়ে মোটামুটি নিশ্চিত বাইকপ্রেমীরা।

ইয়ামাহা তাদের MT-09 মডেলের বাইকের প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করলে, YZF-R9 এ দেখা যেতে পারে ৮৯০ সিসি-র থ্রি সিলিন্ডার, লিকুইড কুল্ড ইঞ্জিন। যা ১১৯ অশ্বশক্তি ও ৯৩ এনএম টর্ক উৎপন্ন করতে পারবে। ইঞ্জিনকে যোগ্য সঙ্গত দিতে ব্যবহার করা হবে সিক্স-স্পিড গিয়ারবক্স। একইসঙ্গে থাকতে পারে স্লিপ ও অ্যাসিস ক্ল্যাচ আর কুইকশিফটার।

নতুন YZF-R7 বা YZF-R15 মডেলের ডিজাইনে চমক দিয়েছিল ইয়ামাহা। R সিরিজের নতুন মোটরসাইকেলের ক্ষেত্রেও অনুরূপ কিছু দেখা যেতে পারে। তবে সংস্থার তরফে আনুষ্ঠানিকভাবে কোনও তথ্য সামনে না আনলে, এগুলি কনফার্ম করা কঠিন বিষয়।

টেকগাপে শুভ্রর প্রথম প্রযুক্তি বিষয়ক লেখায় হাতেখরি৷ স্নাতক স্তরের পড়াশোনার পাশাপাশি এখানেই চলতে থাকে শুভ্রর লেখালেখি৷ কলেজের অধ্যায় শেষ হওয়ার পর শুভ্র এখন টেকগাপের কনটেন্ট টিমের একজন গুরুত্বপূর্ণ সদস্য৷