8K কনটেন্টের টেস্টিং শুরু করলো Youtube, কারা দেখতে পাবেন জেনে নিন

প্রযুক্তিগত উন্নতির সাথে সাথে বিনোদন জগতেও এসেছে দ্রুত পরিবর্তন। আগে ভালো কোয়ালিটির কনটেন্ট দেখার জন্য সেই সিনেমা হলে যেতে হত। কিন্তু এখন বাড়িতে বসেই হাই ডেফিনেশনে যে কোন ভিডিও দেখা সম্ভব। প্রসঙ্গত, এত দিন অব্দি YouTube-এ সর্বাধিক 4K রেজোলিউশনের ভিডিও দেখা যেত। তবে এবার ইউটিউব 8K রেজোলিউশনের কনটেন্টের টেস্টিং শুরু করেছে। তবে এখনই স্মার্টফোন বা ল্যাপটপে দেখা যাবে না এই কনটেন্ট। কিছু কিছু অ্যান্ড্রয়েড টিভিতে সীমিত পরিসরে এর টেস্টিং করা হচ্ছে।

Android Police-এর রিপোর্ট অনুযায়ী ইউটিউব অ্যাপের ২.১২.০৮ ভার্সনে 8K কনটেন্টের সাপোর্ট থাকছে। এর মাধ্যমে অ্যান্ড্রয়েড টিভিগুলিতে 8K কনটেন্ট দেখা যাবে। তবে তার জন্য অ্যান্ড্রয়েড টিভিটিতে লেটেস্ট অপারেটিং সিস্টেম থাকা বাধ্যতামূলক। অর্থাৎ টিভিটি অবশ্যই অ্যান্ড্রয়েড ১০ বা তার উপরের ভার্সনে চলতে হবে।

সম্প্রতি Google আরো জানিয়েছে যে, তারা এবার আর্টিফিশিয়াল ইনটেলিজেন্স বা মেশিন লার্নিং অ্যালগরিদম ব্যবহার করবে যা ভিডিওর মধ্যে চ্যাপ্টার বিভাজন করে দেবে। এর ফলে দর্শকদের বড় ভিডিও দেখতে সুবিধা হবে। বর্তমানে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করার সময় ক্রিয়েটররা নিজেই চ্যাপ্টার বিভাজন করে দিতে পারেন। আপলোডের পর দর্শকরা এই চ্যাপ্টারগুলি দেখতে পারে।

তবে গুগল ইউটিউবের জন্য নতুন AI মেশিন লার্নিং অ্যালগরিদম নিয়ে পরীক্ষা শুরু করেছে। এই অ্যালগরিদম ভিডিওর টেক্সট বুঝে নিজে নিজেই চ্যাপ্টার বিভাজন করে ফেলবে। এই পরীক্ষা সফল হলে ইউটিউবারদের আর নিজে থেকে এই কাজ করতে হবে না। বর্তমানে স্বল্প সংখ্যক ভিডিওর উপর এই পরীক্ষা চলছে। ক্রিয়েটররা যদি মনে করে এই অটো-চ্যাপ্টার ফিচার তাদের ভিডিওকে প্রভাবিত করছে বা ভুল চ্যাপ্টার বিভাজন হচ্ছে তাহলে তারা এই ফিচার বন্ধ করে দিতে পারে।