5G অনেক হল, এবার সস্তায় 4G ফোন লঞ্চ করছে Vivo, কেমন ফিচার্স থাকবে দেখুন

ভিভো আগামী কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই তাদের Y-সিরিজের নতুন স্মার্টফোন, Vivo Y100 (4G ভ্যারিয়েন্ট)-এর ওপর থেকে পর্দা সরাবে বলে আশা করা হচ্ছে। লঞ্চের আগে এই সাশ্রয়ী মূল্যের ভিভো ফোনটিকে ইতিমধ্যেই ব্লুটুথ এসআইজি এবং গিকবেঞ্চ (GeekBench) বেঞ্চমার্কিং ডেটাবেসের মতো গুরুত্বপূর্ণ প্ল্যাটফর্মে দেখা গিয়েছে, যা আসন্ন লঞ্চের দিকে ইঙ্গিত করছে। আর এখন Vivo Y100 (4G) থাইল্যান্ডের এনবিটিসি (NBTC) সার্টিফিকেশন প্ল্যাটফর্মে উপস্থিত হয়েছে।

Vivo Y100 (4G) পেল NBTC-এর ছাড়পত্র

V2342 মডেল নম্বর সহ ভিভো ওয়াই100 থাইল্যান্ডের ন্যাশনাল ব্রডকাস্টিং অ্যান্ড টেলিকমিউনিকেশন কমিশনের ডেটাবেসে তালিকাভুক্ত হয়েছে। যদিও, এই লিস্টিংটি নাম ছাড়া আর কিছু প্রকাশ করেনি। তবে এই সার্টিফিকেশন ওয়েবসাইটে হ্যান্ডসেটটি উপস্থিত হওয়ায় এটা নিশ্চিত যে, ফোনটি খুব শীঘ্রই বিশ্ববাজারে পা রাখতে চলেছে।

জানিয়ে রাখি, আসন্ন ভিভো ওয়াই100 এর আগে গিকবেঞ্চ (Geekbench) প্ল্যাটফর্মে দেখা গিয়েছিল, যা প্রকাশ করে যে ডিভাইসটি কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন 685 প্রসেসর দ্বারা চালিত হবে। এছাড়াও বেঞ্চমার্ক থেকে জানা গেছে যে, ফোনটি লেটেস্ট অ্যান্ড্রয়েড 14 অপারেটিং সিস্টেমে চলবে এবং 8 জিবি র‍্যাম মিলবে। তবে লঞ্চের সময় ফোনটির আরও র‍্যাম অপশন বাজারে আসতে পারে।

এদিকে, Vivo Y100 (4G ভ্যারিয়েন্ট) সম্প্রতি ব্লুটুথ স্পেশাল ইন্টারেস্ট গ্রুপ (SIG)-এরও সার্টিফিকেশন অর্জন করেছে। এই লিস্টিং অনুযায়ী, ফোনটি কিছু মার্কেটে Vivo V30 Lite নামে লঞ্চ হবে। ভিভো ইতিমধ্যেই বিভিন্ন দেশে Vivo Y100 সিরিজের অধীনে তিনটি ভিন্ন মডেল লঞ্চ করেছে। সুতরাং এটি সিরিজের চতুর্থ ফোন, তবে শুধু 4Gসাপোর্টের সাথে প্রথম।