এই পাঁচটি OnePlus ফোন মুড়ি মুড়কির মতো বিক্রি হচ্ছে, রয়েছে লোভনীয় অফার

ওয়ানপ্লাসের বেস্ট সেলিং ফোনগুলির মধ্যে রয়েছে OnePlus Nord CE 2 Lite 5G, OnePlus Nord CE 2 5G, OnePlus Nord 2T 5G, OnePlus 10R 5G এবং OnePlus 10T 5G

5 Best Oneplus Latest Phones 2022 Offer

২০২২ সাল শেষ হওয়ার দোড়গোড়ায় দাঁড়িয়ে আমরা। চলতি বছরে একাধিক স্মার্টফোন ভারতীয় বাজারে পা রেখেছে। যার মধ্যে কয়েকটি ছিল সম্পূর্ণ স্বতন্ত্র বিশেষত্বে ভরপুর, এগুলি ‘বেস্ট সেলিং’ ডিভাইসের তকমাও পেয়েছে। আজকের এই প্রতিবেদনে আমরা এমনই OnePlus ব্র্যান্ডিংয়ের 5G কানেক্টিভিটি সহ আসা বেস্ট সেলিং ফোনগুলি নিয়ে আলোচনা করবো। এই তালিকায় সামিল রয়েছে – OnePlus Nord CE 2 Lite 5G, OnePlus Nord CE 2 5G, OnePlus Nord 2T 5G, OnePlus 10R 5G এবং OnePlus 10T 5G মডেল। এই স্মার্টফোনগুলিতে প্রসেসর খুবই স্মুথ পারফরম্যান্স অফার করবে। এছাড়া এতে – উন্নত ডিসপ্লে ফিচার, ভারী স্টোরেজ, উৎকর্ষমানের ক্যামেরা ফ্রন্ট এবং শক্তিশালী ব্যাটারিও পাওয়া যাবে। আবার কিছু ডিভাইস তো দুর্দান্ত গেমিং অভিজ্ঞতাও প্রদান করে। চলুন এই বছরের ৫টি সেরা OnePlus স্মার্টফোনের দাম ও ফিচার দেখে নেওয়া যাক।

৫টি লেটেস্ট OnePlus স্মার্টফোনের তালিকা

OnePlus Nord CE 2 Lite 5G (6GB+128GB) : ১৮,৯৯৯ টাকা (৫% বা ১,০০০ টাকা ডিসকাউন্ট)

ডুয়েল-সিমের (ন্যানো) ওয়ানপ্লাস নর্ড সিই ২ লাইট ৫জি স্মার্টফোনে কর্নিং গরিলা গ্লাস ভিক্টাস প্রটেকশন সহ ৬.৫৯ ইঞ্চির ফুল এইচডি প্লাস (১,০৮০x২,৪১২ পিক্সেল) ডিসপ্লে রয়েছে, যার এসপেক্ট রেশিও ২০:৯, পিক্সেল ডেনসিটি ২০২পিপিআই এবং রিফ্রেশ রেট (ডাইনামিক) ১২০ হার্টজ। এই ডিসপ্লে, sRGB কালার গ্যামেট এবং ২৪০ হার্টজ টাচ রেসপন্স রেট সমর্থন করে, যা উন্নত গেমিং অভিজ্ঞতা প্রদান করবে বলে জানিয়েছে ওয়ানপ্লাস। তদুপরি, এই হ্যান্ডসেট অ্যাড্রেনো ৬১৯ জিপিইউ এবং অক্টা-কোর স্ন্যাপড্রাগন ৬৯৫ প্রসেসর সহ এসেছে। আর অপারেটিং সিস্টেম হিসাবে এতে অ্যান্ড্রয়েড ১২ ভিত্তিক অক্সিজেনওএস ১২.১ কাস্টম স্কিন পাওয়া যাবে। ক্যামেরা ফ্রন্টের ক্ষেত্রে, আলোচ্য ফোনে ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ বিদ্যমান। এগুলি হল – ৬৪ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর, ২ মেগাপিক্সেল শ্যুটার এবং ২ মেগাপিক্সেল ডেপ্থ সেন্সর। সেলফি এবং ভিডিও চ্যাটের জন্য এই ডিভাইসে ১৬ মেগাপিক্সেলের Sony IMX471 ফ্রন্ট-ফেসিং সেন্সর বর্তমান। ওয়ানপ্লাসের এই ফ্ল্যাগশিপে ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি আছে, যা ৩৩ওয়াট সুপারভোক (SuperVOOC) ওয়্যারড চার্জিং সাপোর্ট করে। এছাড়া বায়োমেট্রিক প্রমাণীকরণের জন্য এতে ইন-ডিসপ্লে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর মিলবে।

OnePlus Nord CE 2 5G (8GB+128GB) : ২৪,৯৯৯ টাকা

ওয়ানপ্লাস নর্ড সিই ২ ৫জি ফোনে কর্নিং গরিলা গ্লাস ৫ প্রোটেকশন সহ ৬.৪৩ ইঞ্চির ফুল এইচডি প্লাস (১০৮০x২৪০০ পিক্সেল) পাঞ্চ-হোল ফ্লুইড AMOLED ডিসপ্লে দেওয়া হয়েছে, যা ৯০ হার্টজ রিফ্রেশ রেট এবং ২০:৯ এসপেক্ট রেশিও অফার করে। উন্নত পারফরম্যান্স অফার করার জন্য উক্ত হ্যান্ডসেটে আর্ম মালি জি৬৮ জিপিইউ এবং ৬এনএম প্রসেসিং নোড ভিত্তিক মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ৯০০ ৫জি প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে। এটি অ্যান্ড্রয়েড ১১ ভিত্তিক অক্সিজেন ওএস ১১ কাস্টম স্কিন দ্বারা চালিত। ওয়ানপ্লাস নর্ড সিই-সিরিজের এই ৫জি ফোনে ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ উপস্থিত। এগুলি হল – ৬৪ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর, ১১৯-ডিগ্রি ফিল্ড-অফ-ভিউ সহ ৮ মেগাপিক্সেল আল্ট্রা-ওয়াইড সেন্সর এবং ২ মেগাপিক্সেলের ম্যাক্রো লেন্স। আবার ফোনটির ডিসপ্লের উপরিভাগে বাম কোণে, এফ/২.৪ অ্যাপারচার ও EIS সাপোর্ট সহ ১৬ মেগাপিক্সেলের Sony IMX471 সেলফি ক্যামেরা রয়েছে। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য ওয়ানপ্লাস নর্ড সিই ২ ৫জি ফোনে ৪৫ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং টেকনোলজির সাপোর্ট সহ ৪,৫০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি আছে।

OnePlus Nord 2T 5G (8GB+128GB) : ২৮,৯৯৯ টাকা

ওয়ানপ্লাস নর্ড ২টি ৫জি স্মার্টফোনে কর্নিং গরিলা গ্লাস ৫ প্রটেকশন সহ ৬.৪৩-ইঞ্চির ফুল এইচডি প্লাস (১,০৮০x২,৪০০ পিক্সেল) AMOLED ডিসপ্লে রয়েছে। এই ডিসপ্লের ডিজাইন পাঞ্চ হোল স্টাইল এবং এটি ২০:৯ এসপেক্ট রেশিও, ৯০ হার্টজ রিফ্রেশ রেট ও HDR10+ টেকনোলজি সাপোর্ট করে। উৎকর্ষমানের পারফরম্যান্স সরবরাহের জন্য এতে অক্টা-কোর মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ১৩০০ প্রসেসর দেওয়া হয়েছে। ফোনটি অ্যান্ড্রয়েড ১২ ভিত্তিক অক্সিজেনওএস ১২.১ (OxygenOS 12.1) দ্বারা চালিত। এই স্মার্টফোনে ডুয়াল-এলইডি ফ্ল্যাশ সহ ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ দেওয়া হয়েছে। এগুলি হল – OIS সহ ৫০ মেগাপিক্সেল Sony IMX766 প্রাইমারি সেন্সর, ১২০-ডিগ্রি ফিল্ড-অফ-ভিউ সহ ৮ মেগাপিক্সেল আল্ট্রা ওয়াইড শ্যুটার এবং ২ মেগাপিক্সেল মনোক্রোম সেন্সর। অন্যদিকে সেলফি এবং ভিডিও চ্যাটের জন্য উক্ত ডিভাইসে ৩২ মেগাপিক্সেলের Sony IMX615 ফ্রন্ট-ফেসিং সেন্সর রয়েছে। ডুয়াল-সিমের (ন্যানো) এই স্মার্টফোনে ৪,৫০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ডুয়াল-সেল ব্যাটারি আছে, যা ৮০ ওয়াট সুপারভোক (SuperVOOC) ফাস্ট চার্জিং সমর্থন করে। আর নিরাপত্তার জন্য উক্ত ডিভাইসে ইন-ডিসপ্লে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর উপস্থিত।

OnePlus 10R 5G (12GB+256GB) : ৩৯,৯৯৯ টাকা (৯% বা ৪,০০০ টাকা ডিসকাউন্ট)

ওয়ানপ্লাস ১০আর ফোনে ১২০ হার্টজ রিফ্রেশ রেটের ৬.৭-ইঞ্চি ফুল এইচডি প্লাস (১০৮০ x ২৪১২ পিক্সেল) AMOLED ডিসপ্লে আছে, যা ২০:৯ এসপেক্ট রেশিও, ১০০০ নিট পিক ব্রাইটনেস, ৭২০ হার্টজ পর্যন্ত টাচ স্যাম্পলিং রেট অফার করে। আর ডিসপ্লের সুরক্ষার জন্য ফোনটিকে ২.৫ডি কার্ভড কর্নিং গরিলা গ্লাস ৫ প্রটেকশন সহ নিয়ে আসা হয়েছে। মাল্টিটাস্কিং ও ফাস্ট পারফরম্যান্সের জন্য এই ৫জি ফোন সংস্থার নিজস্ব গ্রাফিক্স চিপ এবং অক্টা-কোর মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ৮১০০ ম্যাক্স প্রসেসর সহ এসেছে। এই প্রসেসরের সাথে থ্রিডি প্যাসিভ কুলিং টেকনোলজি যুক্ত। এটি অ্যান্ড্রয়েড ১২ ভিত্তিক কালারওএস ১২.১ কাস্টম স্কিনে রান করে। ক্যামেরা ফ্রন্টের ক্ষেত্রে, ওয়ানপ্লাসের এই ৫জি ফোনে ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ উপস্থিত। এগুলি হল – ৫০ মেগাপিক্সেল Sony IMX766 প্রাইমারি সেন্সর, ৮ মেগাপিক্সেল Sony IMX355 আল্ট্রা-ওয়াইড লেন্স ও ২ মেগাপিক্সেল GC02M1 ম্যাক্রো সেন্সর। আর ফোনের সামনে ১৬ মেগাপিক্সেলের Samsung ISOCELL S5K3P9SP সেলফি ক্যামেরা দেখা যাবে। আলোচ্য হ্যান্ডসেটে ১৫০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সমর্থিত ৪,৫০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি আছে। এছাড়া ফোনটি হাইপারবুস্ট গেম ফ্রেম স্টেবিলাইজেশন ইঞ্জিন সহ এসেছে, যা ব্যবহারকারীদের দুর্দান্ত গেমিং অভিজ্ঞতা প্রদান করবে।

OnePlus 10T 5G (8GB +128GB) : ৪৯,৯৯৯ টাকা

ওয়ানপ্লাস ১০টি স্মার্টফোনে ৬.৭-ইঞ্চির ফুল এইচডি প্লাস (১,০৮০x২,৪১২ পিক্সেল) ফ্লুইড AMOLED ডিসপ্লে রয়েছে, যা লো-টেম্পারেচার পলিক্রিস্টালাইন অক্সাইড (LTPO) প্রযুক্তির ওপর ভিত্তি করে নির্মিত। এই ডিসপ্লেটি কর্নিং গরিলা গ্লাস ৫ দ্বারা সুরক্ষিত এবং ১২০ হার্টজ পর্যন্ত রিফ্রেশ রেট, এসআরজিবি (sRGB) কালার গ্যামেট, ১০-বিট কালার ডেপ্থ এবং HDR10+ টেকনোলজি সাপোর্ট করে। এই ফ্ল্যাগশিপ ডিভাইসে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৮ প্লাস জেন ১ অক্টা কোর প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে। এটি অ্যান্ড্রয়েড ১২ ভিত্তিক অক্সিজেনওএস ১২.১ (OxygenOS 12.1) কাস্টম স্কিনে চলে। ফটোগ্রাফির জন্য উক্ত হ্যান্ডসেটে ডুয়াল এলইডি ফ্ল্যাশ সহ ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ রয়েছে। এগুলি হল – OIS সহ ৫০ মেগাপিক্সেল Sony IMX769 প্রাইমারি সেন্সর, ১১৯.৯-ডিগ্রি ফিল্ড-অফ-ভিউ সহ ৮ মেগাপিক্সেল আল্ট্রা-ওয়াইড লেন্স এবং ২ মেগাপিক্সেল ম্যাক্রো শুটার। অন্যদিকে, সেলফি এবং ভিডিও চ্যাটের জন্য ডিভাইসে ১৬ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট-ফেসিং ক্যামেরা বর্তমান। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য, ডুয়েল-সিমের (ন্যানো) এই ফোনে ৪,৮০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ডুয়েল-সেল ব্যাটারি আছে, যা ১৫০ ওয়াট সুপারভোক এন্ডিওরেন্স এডিশন ওয়্যার্ড চার্জিং সাপোর্ট করে। তদুপরি, নিরাপত্তার জন্য এতে একটি ইন-ডিসপ্লে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর এবং ফেস আনলক ফিচারও মিলবে।