কলকাতা সহ বেশ কিছু শহরে বাড়িতে প্রোডাক্ট পৌঁছে দেবে LG

lg-direct-to-consumer-online-store-launch-for-doorstep-delivery

করোনা ভাইরাস প্রাদুর্ভাবের পরে অনলাইনে প্রোডাক্ট কেনার চাহিদা অনেকটাই বেড়েছে, বিভিন্ন সংস্থাগুলিও ক্রেতাদের ‘ডোরস্টেপ’ ডেলিভারি সার্ভিস দিচ্ছে। এবার এই পরিষেবা দেবে ইলেক্ট্রনিক্স জায়ান্ট LG-ও। অর্থাৎ এখন থেকে, LG-এর কোনো প্রোডাক্ট কিনতে আপনাদের কোনো থার্ড পার্টি ই-কমার্স সাইটের ওপর নির্ভর করে থাকতে হবে না। গতকাল, দক্ষিণ কোরিয়ার এই জনপ্রিয় সংস্থাটি গ্রাহকের বাড়িতে প্রোডাক্ট ডেলিভারির জন্য ‘ডাইরেক্ট-টু-কনজিউমার’ অনলাইন স্টোর চালু করার ঘোষণা করেছে।

এছাড়া LG একটি ডাইরেক্ট-টু-কনজিউমার (D2C) চ্যানেল লঞ্চ করেছে, যেখানে গ্রাহকরা বিভিন্ন অ্যাপ্লায়েন্স ছাড়াও অন্যান্য পছন্দের প্রোডাক্ট কিনতে পারবেন। আগ্রহী ক্রেতারা Lg.com ওয়েবসাইটে গিয়ে কোনো প্রোডাক্ট সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে এবং সেটি কিনতে পারবেন। এরপর সেই প্রোডাক্ট পৌঁছে যাবে ক্রেতার বাড়ি।

LG ইন্ডিয়ার এই D2C চ্যানেলটি প্রথমে কিছু নির্দিষ্ট শহরে (যার মধ্যে দিল্লি, মুম্বই, হায়দরাবাদ, গাজিয়াবাদ, গুড়গাঁও, নয়েডা, কলকাতা এবং বেঙ্গালুরু অন্তর্ভুক্ত রয়েছে) সীমিত প্রোডাক্ট পৌঁছে দেবে। তবে কোম্পানি সরবরাহ নেটওয়ার্কে আরও স্থান যুক্ত করে পর্যায়ক্রমে দেশজুড়ে এই পরিষেবা ছড়িয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা নিয়েছে।

আপাতত LG, তার এক্সিটিং লোকাল ওয়্যারহাউসগুলির নেটওয়ার্ক ব্যবহার করবে এবং থার্ড পার্টি পার্টনারের সাহায্যে গ্রাহকদের কাছে অর্ডার সরবরাহ করবে। জানিয়ে রাখি প্রথমে এই পরিষেবার জন্য ১৫০টি এসকিউ(স্টক কিপিং ইউনিট) উপলব্ধ থাকবে, যা সংস্থার সামগ্রিক প্রোডাক্ট পোর্টফোলিওর প্রায় এক-তৃতীয়াংশের সমান। এরপর চাহিদা অনুযায়ী, এসকিউ এর পরিমান বাড়ানো হবে।

এই নতুন পরিষেবা সম্পর্কে LG ইন্ডিয়ার অনলাইন বিজনেসের প্রধান দীপক তনেজা জানিয়েছেন, এই D2C চ্যানেলটি, সংস্থার অফলাইন বিক্রির পরিপূরক হতে পারে, যা সংস্থার ব্যবসা আগের মতই এগিয়ে নিয়ে যাবে। কারণ, এই মহামারীকালীন সময়ে গ্রাহকরা বাড়িতে থাকতে বাধ্য হচ্ছেন, ফলে বাড়ির বিভিন্ন সরঞ্জাম বা বিনোদন প্রদানকারী প্রোডাক্টের চাহিদা বাড়ছে। আর এই চাহিদা পূরণ করতেই আসরে নামছে LG ।